Secret — খুব গোপন এক সুরের ইন্দ্রজাল কিংবা সময়কে স্তব্ধ করে দেয়া এক অভাবিত ভালবাসার উপাখ্যান…

images (7)

সঙ্গীতের ছাত্র Jay Chou যখন Tamkang স্কুলে ট্রান্সফার হল, তখনও সে জানতো না স্কুলের প্রথম দিন তার জন্য কি অদ্ভুত এক চমক জমিয়ে রেখেছে। sky নামের মেয়েটার সাথে যখন তার প্রথম কথা হল, তার কিছুক্ষন পরে হঠাৎ সে এক অদ্ভুত রকমের রহস্যময় সুর শুনতে পেল। সুরের উৎসের সন্ধানে যখন সে পুরাতন বিল্ডিংটার ভেতরে ঢুকল, হঠাৎ তার সাথে দেখা হয়ে গেলো rain নামের আরেক সঙ্গীতের ছাত্রীর সাথে। দুজনেরই পিয়ানোতে মেজর । পরিচিত হবার পরে স্বভাবতই প্রথম যে প্রশ্নটি জে রেইনকে করল , তা হলঃ সে পিয়ানতে একটু আগে যে সুরটি তুলল, সেটা কোন গানের সুর? রহস্যময়ী রেইন আরও রহস্যময় একটা হাসি দিয়ে তাকে জানালঃ

it is a secret that cannot be told.

tumblr_lftwteOwq31qan5b0

কিছুটা অন্তর্মুখী স্বভাবের জে এরসাথে এরপর উচ্ছল রহস্যময়ী রেইনের খুব অদ্ভুত রকমের এক সম্পর্ক তৈরি হয়ে গেলো। রহস্যের কুয়াশায় ঢাকা সেই সম্পর্কে অলিগলি জে বেচারা মাঝে মাঝেই হারিয়ে যেত। সবচেয়ে অবাক ব্যাপারটা হল জে যখন রেইনের সাথে থাকতো, তখন করিডোর, ক্লাসরুম, ড্যান্সপার্টি, খেলার মাঠে, সবখানেই সবাই জে এর দিকে খুব অদ্ভুত দৃষ্টিতে তাকিয়ে থাকতো। যে দৃষ্টিতে শুধু নিখাদ বিস্ময়ই ছিল না, ছিল একগাদা কনফিউশনও। এদিকে প্রথম পরিচিতা স্কাই মনে মনে জে কে খুব পছন্দ করে। যার ফলাফলটা খুব সুখের হল না। স্কাই এর ব্যাপারে জে এর মৌনতা কিংবা উদাসীনতা একদিন ঘটিয়ে ফেলল এক অনিচ্ছাকৃত দুর্ঘটনা। যেই দুর্ঘটনার জন্য রেইন ভুল বুঝল জে কে, জে এর সবকিছু উলটপালট করে চলে গেলো বহুদূরে। এদিকে গ্রাজুয়েশনের দিন ঘনিয়ে এল। যেহেতু সেদিনই পুরাতন পিয়ানো বিল্ডিংটা ভেঙ্গে ফেলা হবে, মুছে যাবে জে আর রেইনের অতি রহস্যময় সম্পর্কের উচ্ছল কিছু মুহূর্তের স্মৃতি, তাই শেষবারের মত জে কে দেখতে রেইন ছুটে যায় স্কুলে। আর সেখানেই নিষ্ঠুর সময়ের প্রবঞ্চনায় আরেক বার দুমড়ে-মুচড়ে যায় রেইন এর ভালবাসার লাল গোলাপ। দুর্ভাগা জে তখনও জানেই না, তার জীবনের সবচেয়ে প্রার্থিত গোলাপটা ভেতরথেকে শুকিয়ে যাচ্ছে একটু একটু করে। দিশেহারা জে তারপর রেইনের মা ও তার বাবার কাছ থেকে জানতে পারে বিস্ময়ের মাত্রা ছাড়িয়ে যাওয়া এক ভালবাসার গল্প, যে গল্পে অদ্ভুতুড়ে সময় তাকে জুড়ে দিয়েছে এক অবাক নিপুনতায়। হতবিহবল জে মুখোমুখি হয় এক অদ্ভুত বাস্তবতার, সুস্থ স্বাভাবিক কোন মানুষের কাছে সেই বাস্তবতা হয়তোবা গাঁজাখুরি কোন কল্পনা, কিন্তু জে’র জীবনে একমাত্র সত্য সেই বাস্তবতা তার জন্য রেখে যায় আপাতদৃষ্টিতে এক অতি অসম্ভব কাজ, একমাত্র শুদ্ধ ভালোবাসাই পারে সেই অসম্ভবকে সম্ভব করতে।

download

Jay Chou নামক এক Taiwanese মিউজিশিয়ানের গল্পে ও তার প্রথম পরিচালনায় নির্মিত 不能說的秘密 (Secret)– (The Secret That Cannot Be Told”) মুভিটি মুক্তি পায় ২০০৭ সালে। পরিচালনাতে অভিষেকেই মাত করে দেয়া Jay Chou ছিলেন এই মুভির প্রধান অভিনেতার ভুমিকায়। আর তার সাথে রহস্যময়ী রূপসী হিসাবে রেইন চরিত্রে ছিলেন Gwei Lun-mei। এবং স্কাই চরিত্রে তাদের মাঝে কাবাব মে হাড্ডি হিসাবে নিজ দায়িত্ব নিষ্ঠার সাথে পালন করেছেন Alice Tzeng। এই মুভির অভিনয় নিয়ে বলার মত ভাষা খুঁজে পাইলাম না বলে দুঃখিত। শুধু নির্বাক করে দেয়া অভিনয়ই নয়, নিজের পরিচালিত প্রথম মুভিতে একজন চমৎকার সুরস্রষ্টা হিসেবে সুরের ইন্দ্রজালে দর্শককে মোহাবিষ্ট করে রাখার কাজটি খুব ভালোভাবেই করেছেন Jay Chou। আর মুভিটা যে প্রশংসার তোড়ে ভেসে গেছে, তা এর পুরস্কারের ঝুলি দেখলেই বুঝতে পারা যায়। ২০০৭ সালের Outstanding Taiwanese Film এর পুরস্কার পাওয়া এই মুভিটি ৪৪তম Golden Horse Awards এ মনোনীত হয়েছিল ৬টি বিভাগে, 27th Hong Kong Film Awards এ মনোনীত হওয়া সহ পেয়েছে আরো অসংখ্য পুরস্কার।

কোরিয়ানরা রোমান্টিক মুভিতে সেরা, তা জানতাম।কিন্তু তাইওয়ানিজরাও যে এই ধরনের রহস্যময় মাস্টারপিস বানায়, এই মুভি দেখার আগ পর্যন্ত আমার সেটা ধারণাতেও ছিলও না। রটেনে ৮৭% দর্শক রেটিং পাওয়া এই মুভি সম্পর্কে আরও কিছু অনুভুতি তুলে দিলাম…

“”For about an hour Secret delivers a highly satisfying love triangle that made me like it. Then it turns into something else that made me love it. Chou’s directorial touch is patient and slightly melancholy and reflective””
—Combustible Celluloid

“” You leave the cinema with the image of Chou’s fingers dancing over the piano keys, creating that extraordinary music. It will be the image of Chou playing the piano one-handed, playing two pianos at the same time, and playing the piano with his upturned face in dream-like bliss. That is what makes this movie worth the watch. As I said, its salvation. Music, so it seems, really can be magical.””

সবশেষে বলা যায়, Jay Chou তার পিয়ানোর সুরের মায়াজালে যে ভালোবাসাকে একটু একটু বুনেছেন, সে ভালোবাসা শুধু আমাদের নির্বাকই করে দেয় না, ভালবাসার অভাবিত ক্ষমতা সম্পর্কে আমাদের আবার ভাবতে বাধ্য করে। কি অসীম প্রচণ্ডতায় ভালোবাসা চূর্ণ করে ফেলে অভূতপূর্ব সব বাধা, অসীম ক্ষমতাধর মহাকাল যেখানে কেবলই বিস্ময়ে নির্বাক দর্শকমাত্র…

http://www.imdb.com/title/tt1037850/

Torrent Download— http://www.asiatorrents.me/index.php?page=torrent-details&id=7200747fbbdf1dbf0fe451eead5673d7805af787

http://extratorrent.com/torrent_download/1958923/Secret+-+Jay+Chou.torrent

(Visited 96 time, 1 visit today)

এই পোস্টটিতে ৯ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. নির্ঝর রুথ says:

    আহ! রিভিউ পড়ে তো ভালোবাসার সাগরে ভেসে গেলাম।

    • ডন মাইকেল কর্লিওনি says:

      খাইছে আম্রে… আপু দাড়াও… আমাদের ছাইড়া যাইয়ো না 😛 … তুমি গেলে দুলাভাই পামু কনে… =D

  2. এমন কাউকে আজ পর্যন্ত পেলাম না যার মুভিটা খারাপ লেগেছে। অবশ্য খারাপ লাগার মত মুভি মনে হয় এটা না 😛

  3. Heisenberg® says:

    চরম রিভিউ লিখছেন ভা । মুভি টা অনেক আগে দেখেছিলুম আবার দেখতে মুঞ্চায় 😀

  4. ট্রিপল এস ট্রিপল এস says:

    লেখা বরাবরের মতই চমৎকার। আমিও আজকে একটা রোমান্টিক মুভির পোস্ট দিলাম, তোমার সাথে মিলে গেলো…

  5. qamark67 says:

    বরাবরের মতই অসাধারণ রিভিউ।দেখে ফেললাম।প্রথমে একটু ন্যাকামি লাগতেছিল। পরে কাহিনীতে ঢুকে পড়লাম।সাউন্ডট্র্যাকগুলা এখনও মাথায় ঘুরতেছে।অস্হির।

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন