Mexico trilogy : এক ভাগ্যবিড়ম্বিত মারিয়াচির রুঢ় বাস্তবতায় ভরা দুর্দমনীয় জীবন কাহিনী…
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

মে্কসিকো ট্রিলজি/মারিয়াচি ট্রিলজি হল “El Mariachi” ; “Desperado”; “once upon a time in Mexico” নিয়ে গঠিত আমার দেখা অন্যতম সেরা আন্ডাররেটেড মুভি ট্রিলজি।কেন এই ট্রিলজিটা আন্ডাররেটেড, এই ব্যাপারটা অবশ্য বড়ই রহস্যজনক। চমৎকার গল্প, কাহিনীর প্রাঞ্জলতা, অস্থিরতায় ভরা অ্যাকশন, ইনোভেটিভ কিছু স্টাইল, বন্ধুর জন্য সবকিছু বাজি রেখে দাঁতে দাঁত চেপে শেষ মুহূর্ত পর্যন্ত লড়ে যাওয়ার মানসিকতা আর দেশপ্রেমের এক অভাবিত উদাহারন… কি নেই এই ট্রিলজিতে…

 

“El Mariachi”

মেক্সিকোর এক ছোঁট্ট শহরে এক সকালে সাঙ্গ-পাঙ্গসহ জেল থেকে পালিয়ে যায় আজুল নামের এক নিষ্ঠুর সন্ত্রাসি।পালিয়ে যাওয়ার কারন তার এক সময়ের বস স্থানীয় এক ড্রাগ ডিলারের বিশ্বাসঘাতকতা। ঠিক সেই সময় শহরে এক তরুন প্রতিভাবান মারিয়াচির আবির্ভাব ঘটে। আজুল আর তার মধ্যে একটাই মিল; দুজনেরই একটা করে Getter Case আছে।ফলাফলটা খুব ভয়াবহ হয়।একটা গীটার কেসই বদলে দেয় এক প্রতিভাবান তরুন মারিয়াচির জীবনের কক্ষপথ।

১৯৯২ সালে কাহিনিকার ও পরিচালক হিসাবে স্প্যানিশ ভাষায় নবিশ ও অনভিজ্ঞ কিছু শিল্পীর অভিনয়ে মাত্র $৭০০০ ডলারে ১৬ মিলিমিটার রীলে নির্মিত এই চলচিত্রের মাধ্যমে Robert Rodriguez এর যখন অভিষেক হয়, তখন কেই বা ভেবেছিল যে কি অনন্য অসাধারণ এক ট্রিলজি তিনি উপহার দিতে যাচ্ছেন। প্রায় সবই প্রথম হিসাবে এই মুভিটা হয়তোবা ট্রিলজির সবচেয়ে সাদামাটা, বর্ণহীন মুভি, কিন্তু একই সঙ্গে এটি এক চমৎকার মাস্টারপিসের পূর্বাভাসও বটে।

ImdB- http://www.imdb.com/title/tt0104815/

torrent link – http://isohunt.com/torrents/EL+Mariachi?iht

“Desperado”

এক ভাগ্য বিড়ম্বিত মারিয়াচি, জীবনের যাবতীয় রুপ-রস-গন্ধ যার কাছে ধু ধু মরুভুমির মাঝে মরীচিকার মত,সেই জীবনের রচয়িতাকে একজন মারিয়াচির হার না মানা চরিত্র দেখিয়ে দেয়ার গল্প এটি। গায়ক হবার এক চমৎকা্র স্বপ্ন নিয়ে একদিন যে শহরে সে এসেছিল, ভাগ্যের নির্মম পরিহাসে সব হারানোর পরে শুধুমাত্র প্রতিশোধ নেয়ার অদম্য মনোবল তাকে আবারো সেই শহরে ফিরিয়ে নিয়ে আসে। ভুল বলা হল, শুধু তাকেই নয়, তার গীটারের কেসটাকেও। এক দুর্দমনীয় মারিয়াচির গল্পে আপনাকে স্বাগতম।

১৯৯৫ সালে মুক্তি পাওয়া এই মুভিটা শুধুমাত্র রদ্রিগেজের পরিচালক ও কাহিনিকার হিসাবে আরও শানিত হয়ে ওঠাই নিশ্চিত করেনি, মুভি জগতকে দিয়েছে এক অনন্যসাধারন একশন ইলিমেনট– ” গীটার কেস ”
Antonio Banderas দেখিয়েছেন তিনি কি মাপের অভিনেতা আর গীটার হাতে তিনি কি করতে পারেন। Joaquim de Almeida বুচো চরিত্রে পুরা ইরানের প্রেসিডেন্টের মতই অস্থির অভিনয় করেছেন।(if u know what i mean :v )

ImdB- http://www.imdb.com/title/tt0112851/

torrent link – Click This Link

“Once Upon a Time in Mexico”

Now we caome to the point— ট্রিলজি মেক্সিকোরে নিয়া, অথচ মেক্সিকোর নাম-গন্ধ নাই???
এবার মারিয়াচির শুধু নিজের দুঃখ- কষ্ট নিয়ে চিন্তা করলেই চলবে না। কারন তার দেশের যেঁ আজ তাকে খুবই প্রয়োজন। এক দিকে এক ড্রাগ লর্ড, যে কিনা এক জেনারেলের(যে কিনা আবার মারিয়াচির খুব পরিচিত) কাধে ভর দিয়ে ক্ষমতায় যাবার স্বপ্ন দেখে, অন্য দিকে ছলে বলে কৌশলে নির্বাচিত সরকারকে ছুড়ে ফেলে দিয়ে ক্ষমতা কুক্ষিগত করার পায়তারা বিদেশী অপশক্তির। কি করা উচিৎ এখন মারিয়াচির ?? নিজেও স্বার্থরক্ষা মাধ্যমে দেশকে অপশক্তির হাতে তুলে দেওয়া, না , দেশ রক্ষায় গীটার কেস টা আবার হাতে তুলে নেয়া। ওয়েলকাম টু হেল…

ডেস্পারাডো যদি রদ্রিগেজের পরিচালনার তরুন উন্মাদনা হয়, তবে “Once Upon a Time in Mexico” ছিল এক পূর্ণ যৌবন। কিছু ত্রুটি ছিল, কিন্তু কাকে কিভাবে কোথায় ব্যবহার করতে হয়, সেই মুন্সিয়ানা দেখিয়ে সেই ত্রুটিকে এক অপূর্ব শিল্পে পরিনত করেছেন এই জাদুকর । Banderas বরাবরের মতই চখাম ছিলেন কিন্তু সারপ্রাইজ কাস্ট বার্থডে বয় =D (৯ই জুন) দি গ্রেট জনি ডেঁপের অভিনয় ছিল “দেখিতে বড়ই সোন্দরজো” টাইপের।

ImdB- http://www.imdb.com/title/tt0285823/

torrent link – Click This Link

সব মিলিয়ে একটা ৭০০০ ডলারের মুভি ট্রিলজি হিসাবে শুরু করে শেষতক শুধুমাত্র শেষ মুভি দিয়েই আয় করে প্রায় ১০০ মিলিওনের উপরে যা এক বিশ্বরেকর্ড বটে। জানি অনেকেরই দেখা আছে, কিন্তু যারা দেখেননি, ট্রাস্ট মি আইডিএমবির রেটিঙের দিকে তাকিয়ে যদি এই ট্রিলজি না দেখেন, you surely gonna missing something in your life. লাইফে প্রথম ট্রিলজি নিয়া লেখলাম, ভুল ত্রুটির জন্য ক্ষমা প্রার্থী । হ্যাপি মুভি ওয়াচিং ^_^

অফফ টপিক – মারিয়াচি কথাটা মূলত এসেছে এক ধরনের মেক্সিকান ফোক মিউজিক হতে।যদিও এর আসল উৎপত্তি সম্পর্কে ধোয়াশাঁ আছে কিন্তু বর্তমানে মারিয়াচি বলতে এক ধরনের বিশেষ ও অনন্য্ সাধারন সঙ্গীত এবং সেই সঙ্গীতের শিল্পীদের বোঝানো হয়।

আরেকখান অফটপিকঃ সালমা আপুরে বিশেষ কইরা তার হাটার ইসটাইল আর খুনাখুনি করার ইসটাইল অতি ভালা পাইসি.. =D


এই পোস্টটিতে ৪ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. লেখা অতিশয় ভালো লাগলো । অতিশয় মানে কী জানি ভুইলা গেছি যদিও -_-

  2. অনিক চৌধুরী says:

    দারুণ একটা ট্রিলজি।

  3. মেগামাইন্ড says:

    ভাল লাগছে

  4. Joy choudhury Joy choudhury says:

    Once Upon a Time in Mexico মেক্সিকান ভাষায় দেখছি তার পরেও আমার দেখা কয়েকটা সেরা মুভির একটা।

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন