Invictus (2009): Nelson Mandela and the Game That Made a Nation
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest1

২৭ বছর কারাবাসের পর ১৯৯০ সালে নেলসন ম্যান্ডেলা কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে আসেন। এর চার বছর পর ১৯৯৪ সালে তিনি দক্ষিণ আফ্রিকার প্রেসিডেন্ট হিসেবে নির্বাচিত হন। দক্ষিণ আফ্রিকার ইতিহাসে তিনিই ছিলেন প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ প্রেসিডেন্ট। প্রেসিডেন্ট হিসেবে তার কর্মকালে দক্ষিণ আফ্রিকার সবচেয়ে প্রবল জাতিবিদ্বেষের মুখোমুখি হন। সাদা চামড়ার মানুষেরা দেখতে পারে না কালো চামড়ার মানুষদের, কালো চামড়ার মানুষেরা দেখতে পারে না সাদা চামড়ার মানুষদের। এর ফলে ঐ দেশে অপরাধ আর নৈরাজ্যের পরিমাণ বেড়ে যাচ্ছিল। পাশাপাশি ক্রমপ্রসারমাণ দারিদ্রতাও চেপে বসছিল। এমন অবস্থায় ১৯৯৪ সালে একটি আন্তর্জাতিক রাগবি ম্যাচ (ফুটবল জাতীয় খেলা) অনুষ্ঠিত হয়। ঐ খেলায় দলের সবাই শ্বেতাঙ্গ। ম্যান্ডেলা লক্ষ্য করেন দক্ষিণ আফ্রিকা ভালো করলে কৃষ্ণাঙ্গরা চুপ থাকে, শুধুমাত্র শ্বেতাঙ্গরা উল্লাস করে। অন্যদিকে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষ দল গোল দিলে স্বয়ং দক্ষিণ আফ্রিকান হয়েও বিপক্ষ দলের হয়ে উল্লাস করে। খুবই অদ্ভুত, সাদা-কালোর বিদ্বেষ এমনই যে নিজের দেশও সেখানে ম্লান।

 

ম্যান্ডেলা উপলব্ধি করতে পারছিলেন জাতিগত বিদ্বেষ ভুলে সাদা-কালো সবাই এক হলেই দেশের এই ক্রান্তিকাল থেকে মুক্তি পাওয়া যাবে। তিনি এই রাগবিকেই টার্গেট হিসেবে নিলেন, এই খেলার মাধ্যমেই আফ্রিকান সাদা-কালো সবাইকে এক করবেন। জ্ঞানগর্ভ বক্তৃতা কিংবা ঋদ্ধ কোনো বইয়ের চেয়ে এটাই বেশি কার্যকর। বই আর কয়জনে পড়ে? লেকচার আর কয়জনে শুনে? পড়লে বা শুনলেও এক কান দিয়ে ঢুকবে অন্য কান দিয়ে বেরুবে। এর চেয়ে ভালো পদ্ধতি হচ্ছে পরোক্ষভাবে কোনো মাধ্যম ব্যবহার করে সবাইকে একত্র করা। কেউ যে কারো জন্য ক্ষতিকর নয় সেটা বাস্তবে উপলব্ধি করাতে সাহায্য করা। তিনি খেলাকে টার্গেট করে ধীরে ধীরে এগিয়েছেন। এই এগিয়ে যাবার গল্প নিয়েই তৈরি হয়েছে Invictus (2009) চলচ্চিত্রটি। খেলার মতো একটি জিনিস পৃথিবীর অন্যতম কঠিন জাতিগত সমস্যাকে সমাধান করে ফেলবে এটা ভাবা অবিশ্বাস্য। যার মনন খুবই বেশি উন্নত একমাত্র সে-ই এমন ধরনের জিনিস উপলব্ধি করতে পারবে। আর এখানে আছেন নেলসন ম্যান্ডেলা, যিনি শ্বেতাঙ্গ-কৃষ্ণাঙ্গ ইস্যুতে আন্দোলন করেছিলেন। আন্দোলন করেছিলেন বলে শ্বেতাঙ্গরা তাকে ২৭ বছর জেলে আটকে রেখেছিল। এবং এত বছর কারাবাস শেষ করে বের হওয়া মাত্রই সবাইকে ক্ষমা করে দিয়েছিলেন।

চিত্রঃ নেলসন ম্যান্ডেলা।

জন কার্লিন এর লেখা Playing the Enemy: Nelson Mandela and the Game That Made a Nation বইকে ভিত্তি করে এই চলচ্চিত্রটি নির্মিত হয়েছে। পরিচালনা করেছেন ক্লিন্ট ইস্টউড। ইস্টউড অভিনীত ডলার্স ট্রিলজি (১. এ ফিস্টফুল অব ডলার্স; ২. ফর এ ফিউ ডলার মোর; এবং ৩. দ্যা গুড, দ্যা ব্যাড অ্যান্ড দ্যা আগলি) চলচ্চিত্রের ইতিহাসে বিখ্যাত হয়ে আছে। ম্যান্ডেলা চরিত্রে অভিনয় করেছেন চলচ্চিত্র জগতের আরেক লিজেন্ড মর্গান ফ্রীমান। রাগবি দলের ক্যাপ্টেন হিসেবে অভিনয় করেছেন ম্যাট ডেমন। খুব সুন্দর ও চমৎকার অভিনয় হয়েছে। দেখার মতো মুভি। এই মুভিতে অভিনয়ের জন্য সেরা অভিনেতা হিসেবে মর্গান ফ্রীমান এবং সেরা পার্শ্ব অভিনেতা হিসেবে ম্যাট ডেমন অস্কার মনোনয়ন পেয়েছিল।

 

পুনশ্চঃ অনেকের মনে প্রশ্ন হতে পারে মুভির সাথে Invictus নামের সম্পর্ক কী? এই শব্দটি একটি ঐশ্বরিক উপাধি। এই নামে ব্রিটিশ কবি ‘উইলিয়াম আর্নেস্ট হেনলি’র একটি কবিতা আছে। এই কবিতাটি কারাগারে নেলসন ম্যান্ডেলাকে অনুপ্রেরণা দিয়েছিল। সিনেমায় বেশ কয়েকবার কবিতাটির লাইন বলা হয়েছে। এখানে কবিতাটি তুলে দিলাম-

 

Out of the night that covers me,
Black as the pit from pole to pole,
I thank whatever gods may be
For my unconquerable soul.

 

In the fell clutch of circumstance
I have not winced nor cried aloud.
Under the bludgeonings of chance
My head is bloody, but unbowed.

 

Beyond this place of wrath and tears
Looms but the Horror of the shade,
And yet the menace of the years
Finds, and shall find me, unafraid.

 

It matters not how strait the gate,
How charged with punishments the scroll,
I am the master of my fate:
I am the captain of my soul.

 

ছবি ও তথ্যসূত্র

http://www.imdb.com/title/tt1057500/
https://en.wikipedia.org/wiki/Invictus_(film)
https://en.wikipedia.org/wiki/Nelson_Mandela
https://en.wikipedia.org/wiki/Invictus

Invictus (2009)
Invictus poster Rating: 7.4/10 (111881 votes)
Director: Clint Eastwood
Writer: Anthony Peckham (screenplay), John Carlin (book)
Stars: Morgan Freeman, Matt Damon, Tony Kgoroge, Patrick Mofokeng
Runtime: 134 min
Rated: PG-13
Genre: Biography, Drama, History
Released: 11 Dec 2009
Plot: Nelson Mandela, in his first term as the South African President, initiates a unique venture to unite the apartheid-torn land: enlist the national rugby team on a mission to win the 1995 Rugby World Cup.

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন