ভ্লাদিমির নাবোকভ-এর বিশ্ববিখ্যাত উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত মুভি – লোলিটা (Lolita)

১৯৪৭ সাল। ইউরোপীয় প্রফেসর হ্যামবার্ট চাকরীর সূত্রে আমেরিকাতে আসেন। কার্লোট হেয নামের এক ভদ্রমহিলার বাসা ভাড়া নেন তিনি। কার্লোটের “লোলিটা” নামের ১২ বছর বয়সী একটা অপূর্ব সুন্দর মেয়ে ছিল। ঘাসের উপর শুয়ে একমনে বই পড়তে থাকা লোলিটাকে দেখে মুগ্ধ হয়ে যান হ্যামবার্ট।

tintinrocks_1308846190_3-lolita-1997-dominique-swain12

লোলিটার প্রতি প্রচন্ড আকর্ষন বোধ করতে শুরু করেন তিনি- মানসিক এবং অবশ্যই শারীরিক।

নিজের ভালোবাসার কথা এবং লোলিটাকে দেখে শারীরিক যে প্রচন্ড আকর্ষন বোধ করেন-সেগুলো সব ডায়েরীতে লিখে রাখেন হ্যামবার্ট। একসময় লোলিতার মা হ্যামবার্টকে বিয়ের প্রস্তাব দেয়। হ্যামবার্ট এক কথায় রাজী হয়ে যায়, একটাই কারন, কার্লোটকে বিয়ে করলে সে লোলিতার আরো কাছাকাছি আসতে পারবে।

tintinrocks_1308846134_2-lolita-german-movie-poster-1998

কিছুদিন পর লোলিটা একটা সামার ক্যাম্পে গেল। লোলিটার মা ঘর গুছাতে যেয়ে হ্যামবার্ট-এর ডায়েরী খুজে পায়, যেখানে লোলিটার প্রতি তার যৌন আকর্ষনের সমস্ত কথা স্পষ্টভাবে লেখা ছিল। ডায়েরী পড়ে ঘৃণায় পাগল হয়ে কার্লোট হেয প্রচন্ড বেগে রাস্তায় বের হয়ে আসলে একটা ট্রাকের সাথে ধাক্কা লেগে সাথে সাথে মারা যান।

স্ত্রীর এই মৃত্যুতে কষ্টতো পেলই না বরং খুশী হলো হ্যামবার্ট। সামার ক্যাম্প থেকে সে নিজেই লোলিটাকে আনতে গেল। কিন্তু তাকে নিয়ে আর বাসার দিকে না এসে বরং শহরের দিকে গাড়ি ছোটালো হ্যামবার্ট। লোলিটা এ নিয়ে কোন প্রশ্ন করলো না তাকে। নিজের প্রতি তার স্টেপ পিতার শারীরিক আকর্ষনের ব্যপারটা আগে থেকেই অনুভব করতে পেরেছিল লোলিটা। তাই আর কষ্ট করতে হলোনা হ্যামবার্টকে। লোলিতার কাছে তার যা প্রয়োজন ছিল, লোলিটা নিজে থেকেই নিজেকে উম্মুক্ত করে দিল নিজের স্টেপ পিতার কাছে।

এরপর দেশের বিভিন্ন শহরে ঘুরতে লাগলো তারা। থাকতে লাগলো বিভিন্ন মোটেলে আর সাথে চলতে লাগলো তাদের অসম প্রেম কাহিনী। এরপর ……..?

দেখতে শুরু করেন, সবই জানতে পারবেন…..

 

১৯৯৭ সালে লোলিটা মুভিটা তৈরি করা হয়েছে ভ্লাদিমির নাবোকভ-এর বিশ্ববিখ্যাত “লোলিটা” উপন্যাস থেকে। উপন্যাসটা সম্পর্কে বলতে যেয়ে লেখক একটা ছোট মজার ঘটনা বলেছিলেন।

“লেখাটা পড়ে এক প্রকাশক তাকে বলেছিল,

*তোমার এ বই আমি ছাপতে পারি, এক শর্তে।

*কি শর্ত?

*লোলিটার জায়গায় ১২ বছরের এক ছোকড়া করে দিতে হবে, যার সঙ্গে হ্যামবার্ট অবৈধ প্রেমে লিপ্ত থাকবে।” 😛

সারা পৃথিবীতে প্রচন্ড আলোড়ন তুলেছিল “লোলিটা”।

 

(সংবিধিবদ্ধ সতর্কীকরন: অবশ্যই “লেলিটা” একটা প্রাপ্ত বয়স্ক মুভি।)

IMDB Link: Lolita (1997)

ডাউনলোড লিংক:

Lolita-৮০১ মে:বা:

Lolita-২ জিবি

(Visited 180 time, 1 visit today)

এই পোস্টটিতে ৪ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. fs71gh says:

    Onek khojakhuji kore Lolita (1962) and Lolita (1997) ei duto movie- eri dvdrip (480p or less) pelam net e. But 720p ki ase available?

  2. ট্রিপল এস ট্রিপল এস says:

    চমৎকার শেয়ার…

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন