Bad Genius: ২০১৭ সালের অন্যতম সেরা ফরেইন মুভি
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

আজ আমি যেই মুভিটা নিয়ে লিখতে যাচ্ছি, সেটি ২০১৭ এর আমার অন্যতম পছন্দের ফরেইন মুভি। মুভিটার ভালো প্রিন্ট ও ইসাব নেটে আসার পর মুভি রিলেটেড গ্রুপগুলোতে তোলপাড় শুরু হলো, তখন মোটামুটি বাধ্য হয়েই মুভিটা দেখে ফেলি। আর সাথে সাথে সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলি, এই মুভির বাংলা সাব আমি করবোই করবো। শেষমেশ, করেই ফেলেছি। শুধু একটা রিভিউ লিখা বাকি ছিল। সেটা লিখে, এখন ষোল আনা পূর্ণ করতে চললাম আরকি।
যাইহোক, মুভির রিভিউ তে চলে যাওয়া যাক।

——————★ Bad Genius ★——————–
Release Date: 03 May, 2017
Genre: Crime, Drama, Comedy
Language: Thai
Running Time:
Imdb Rating: 8/10
Rotten Tomatoes: 92%

মুভিটার গল্পে যাওয়ার আগে আমার নিজের সম্পর্কে একটা মজার কথা শেয়ার করি। আমি মেয়েটা নকল / ধাপ্পাবাজি এসব খুব অপছন্দ করি। আমি যদি কোন পরীক্ষাতে নাও পারি, পাশের বন্ধুরটা দেখার সাহস আমার কখনোই হয়ে উঠেনি। এমনকি কেউ আমার খাতার দিকে তাকালে, আমার হাত চলে না। তাই অন্য কাউকে খাতা দেখিয়ে সাহায্য করাটাও আমার পক্ষে সম্ভব হয় না। যদিওবা অনেকবার এজন্য, আমাকে অনেকেই স্বার্থপর বলে অভিহিত করেছে, কিন্তু আমি আমার সিদ্ধান্তে অটল। যাইহোক, কী ভাবছেন? মেয়েটা নিজের কাহিনী নিয়ে এতো বকবক করছে কেন? আসলে এই মুভিটা দেখার সময় আমার হঠাৎ করে পুরনো স্মৃতিগুলো মনে পড়ে গেলো।

আচ্ছা, এবার মুভির প্লটের দিকে মনোযোগ দেওয়া যাক। মুভির প্লট গড়ে উঠেছে মূলত থাইল্যান্ডের একটি স্কুলের একাদশ শ্রেণীর চারজন শিক্ষার্থীর গল্পকে ঘিরে। মুভির মূল চরিত্রের নাম রিনরাডা ( লিন), যে কিনা অসম্ভব মেধাবী একজন ছাত্রী। শিক্ষক বাবার মেয়ে লিন অতিরিক্ত প্রাচুর্যে বড় ন্স হলেও, বাবা থেকে অনেক কিছু শিখেছিল সে। তাই বলতে গেলে নিজের বয়সী অন্যান্য ছেলেমেয়েদের থেকে সে ছিল একটু বেশিই মানসিক দিক থেকে পরিপক্ক। লিনের বাবা মেয়ের ভবিষতের কথা চিন্তা করে তাকে যখন আগের স্কুলে থেকে নামীদামী একটি স্কুলে ভর্তি করেন, তখন লিনের পরিচয় হয় গ্রেইস নামের একটি ভোলাভালা মিষ্টি মেয়ের সাথে। গ্রেইস ও লিন ধীরেধীরে বেস্ট ফ্রেন্ড হয়ে উঠলেও, লিন ও গ্রেইসের প্রাতিষ্ঠানিক ফলাফলের ছিল আকাশপাতাল তফাত। একদিন স্কুলের লাইব্রেরিতে বসে পড়াশোনা করার সময়ে গ্রেইস লিনকে হঠাৎ করে প্রস্তাব দিয়ে বসে, তাকে প্রাইভেট পড়াতে। প্রথমে লিন রাজি না হলেও, গ্রেইসের মিষ্টি কথাতে না এসে পরে আর পারলো না। তারপর ওদের মিড টার্ম সংঘটিত হবার পর।, দলে দলে ছেলেমেয়ে আসতে লাগলো লিনের কাছে পিয়ানো শিখতে। কিন্তু কেন? মিড টার্ম পরীক্ষাতে এমন কী ঘটেছিল যে সবাই লিনের পিয়ানো ক্লাসে আসার জন্য মরিয়া হয়ে উঠলো?
আর কী করেই বা মেধাবী ছাত্রী লিন গুরু লিন উপাধিতে ভূষিত হলো? সেই কাহিনী জানতে হলে, আপনাকে মুভিটা দেখতে হবে।

মুভি সম্পর্কে আমার অভিমত জানতে চাইলে, শুধু একটা কথাই বলবো, “অস্থির”। আসলেই একটু বেশি অস্থির। কোরিয়ান মুভির ভক্ত আগে থেকেই। জানি না এবার হয়তো থাই মুভিরও হয়ে যাবো। মুভির সবথেকে ভালোদিক হলো, মুভিটা বিশ্বের একটা বড়সড় অপরাধকে অত্যন্ত সুনিপুণভাবে দর্শকদের সামনে হালকা থ্রিলার ও ভালোই নাটকীয়তার সাথে পরিবেশন করেছে। মুভিটা দেখার সময় আমার নিজেদের দেশের শিক্ষা ব্যবস্থার যেই অসংগতিগুলো আছে, সেগুলোর কথা চোখে ভেসেছে। মুভির আরও একটি সেরা দিক হলো, এখানে শুধু নকল/ জালিয়াতির পেছনে যে শিক্ষার্থীদের হাত থাকে তা নয়। আমাদের গুরুজনেরাও যে পরোক্ষভাবে এসবের সাথে জড়িত সেই বিষয়টাও দেখানো হয়েছে। আমাদের দেশে আসলে এমন মুভির গল্প সবথেকে বেশি দরকার। সবসময় সরকারি কর্মকর্তার দুর্নীতি, পুলিশের দুর্নীতি, অন্যান্য অপরাধ বিষয়ক মুভি দেখার পর এমন একটা নতুন উপাদান নিয়ে মুভি দেখে আসলেই মন ভরে গেলো। মুভির নির্মাণকৌশল ও চিত্রনাট্য দারুণ। পুরোটা সময় জুড়ে, একটা আলাদা উত্তেজনা কাজ করবে দর্শকের মনে। যাইহোক, আমি এবার থামছি। আশা করি, সবার ভালো লাগবে। যারা আমার বাংলা সাব দিয়ে মুভিটি উপভোগ করবেন, প্লিজ আপনাদের মতামত জানাবেন। ধন্যবাদ।

মুভি ডাউনলোড লিংক: http://sarah-iqbal ডটml/movies/bad-genius-2017-720p-bluray-esub ( ডট ও স্পেস কেটে দিন)
বাংলা সাবটাইটেল লিংক: https://subscene.com/subtitles/bad-genius/bengali/1680062

এই পোস্টটিতে ৬ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. ভাই ডাউনলোড এর লিংক টা একটু দিবেন

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন