My Sassy Girl Jun Ji-Hyun এর যত মুভি – পর্ব ৪ + ড্রামা সিরিজ+মিউজিক ভিডিও+জন্মদিন:)
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

 

 

My Sassy Girl jun ji hyun - Rifat Sharna

My Sassy Girl Jun Ji-Hyun এর যত মুভি – পর্ব ১  , পর্ব ২   , ও পর্ব ৩    এর পর –

11.The Berlin File (2013)

IMDb Rating: ৬.৭/১০ (http://www.imdb.com/title/tt2357377/)

নর্থ কোরিয়ান স্পাই পেয়ো জং সো বার্লিন হোটেলে অবৈধ অস্ত্র চুক্তি ভেস্তে যাওয়ায় বেশ বিপাকে পড়ে। ওদিকে সাউথ কোরিয়ান এজেন্টরাও তার পিছু ধাওয়া করে। এক সময় উপর মহলের নির্দেশ পেয়ে সে নিজের স্ত্রী রায়ুন( জুন জি হিয়ন) এর পরিচয় নিয়ে সন্দিহান হয়ে পড়ে। এমনই কাহিনীকে কেন্দ্র করে নির্মিত হয়েছে  Ryoo Seung-wan পরিচালিত স্পাই-থ্রিলার “The Berlin File”

The_Berlin_File1

মুভিতে কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনেতা হা জুং ও এর অভিনয় নিঃসন্দেহে প্রশংসার দাবিদার। সাথে জুনের  চরিত্রের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সংলাপ মনে হল- “তোমাকে আমার অনেক কিছু বলার আছে!’’ সমালোচক ও দর্শক আনুকূল্য ধন্য হলেও সব মিলিয়ে আমার কাছে  মুভিটি বিশেষ ভালো লাগে নি। তার চেয়ে সমসাময়িক সময়ে দেখা আরেকটি থ্রিলারধর্মী মুভি Cold Eyes(2013) বেশ ভালো লেগেছিল- পুরো মুভিতে কৌশল আর বুদ্ধিদীপ্ততার বেশ ছোঁয়া ছিল।;-)

আপকামিং মুভি- 

The Assasination (2015)

http://www.imdb.com/title/tt3501416/

assasination jun ji hyun

১৯৩০ সালের পটভূমিতে কোরিয়ার স্বাধীনতা সংগ্রামকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে “The Thieves”খ্যাত পরিচালক  Choi Dong Hoon এর এই  মুভিটি। যাতে একদিকে স্বাধীনতাকামী একদল গুপ্তঘাতকের নেতৃত্ব  দেবেন স্নাইপার ইওন (জুন জি হিয়ন) , অন্যদিকে অস্থায়ী কোরিয়ান  সরকারের এজেন্ট হিসেবে দেখা যাবে জুনের “Il Mare(2000)”, “The Thieves(2012)” এর সহশিল্পী লি জাং-কে।বর্তমানে চীনের সাংহাইয়ে নির্মাণাধীন মুভিটি ২০১৫ সালের সামারে মুক্তির কথা রয়েছে।

 

ড্রামা সিরিজ-

My Love From the Star” AKA “You Who Came from Another Star” (2013-14) 

IMDb রেটিং- ৮.১/১০ (http://www.imdb.com/title/tt3469052 )

My Love From The Star1

চীনের অনেক প্রদেশেই বার্ড ফ্লু-র প্রাদুর্ভাবের পর থেকে চিকেন খাওয়ার চল একদমই কমে গিয়েছিল।  কিন্তু হঠাৎ করেই নাকি চিমেক( চিকেন-বিয়ার) খাওয়ার ধুম পুরো চায়না জুড়ে ভাইরাসের মত ছড়িয়ে  পড়েছে! কারণ  আর কিছুই না- এক কোরিয়ান ড্রামা সিরিয়ালে নায়িকা যে বলেছেন – ‘ বর্ষণমুখর আর তুষারস্নাত দিনগুলোতে চিকেন আর সোজু (বিয়ার) তার বড়ই পছন্দনীয়!’

4f94fba6a728ad34cbbc3a0501a76079

প্রায় ছয় মাস আগে এক ওয়েবসাইটে এমনই একটি পাগলাটে সংবাদে চোখ পড়েছিল।তখন  মুভির   পাশাপাশি  কোরিয়ান ড্রামা সিরিজগুলোরও তুমুল জনপ্রিয়তা সম্পর্কে একটু-আধটু করে জানছি, কিন্তু ১৬-২০ পর্ব দীর্ঘায়িত বলে ঠিক দেখার সাহস হচ্ছে না।তারপরও Windstruck(2004) দেখা বাদে যখন sassy  জুন জি হিয়নের  ভক্ত হলাম  তখন তার সাম্প্রতিক অভিনীত এই মহা জনপ্রিয় সিরিজটিও মিস করি কী করে  !( যাতে আবার জুন তার চেয়ে পাক্কা ৬ বছরের ছোট ও The Thieves এর সহশিল্পী কিম সু হিয়নের সাথেই জুটি বেঁধেছেন)  তাই ভাবলাম- উনার সব মুভি দেখা শেষ করিয়া লই, অতঃপর ইহাকেও দেখিতে পারি!    ;-)

1959987_1462704543961033_419280474

এরই মাঝে একে একে ৪ টি কোরিয়ান ড্রামা সিরিজ( Full House, Heirs, You’re Beautiful, My Girl)   দেখা হয়ে গেল। বুঝে নিলাম এসব ড্রামা সিরিজের কিছু  সাধারণ বৈশিষ্ট্য –

১]  বিপরীত স্বভাবের নায়ক-নায়িকা; মোটামুটি  ২-৩ টি পর্বের মাঝেই চরিত্রগুলো চেনা  বাদে  কাহিনীর  মেলোড্রামাটিক উন্নতি  অবলোকন

২] পার্শ্ব ( সেকেন্ড) নায়ক-নায়িকার আবশ্যিক উপস্থিতি- পার্শ্ব নায়িকার মাঝে ভিলেন ভাব আর পার্শ্ব নায়কের মাঝে প্রচণ্ড আবেগি ভাব থাকবে – এতটাই যে Heirs বাদে বাকি ড্রামা সিরিজগুলোয় আমার ভোট ছিল সেকেন্ড নায়কের সাথে নায়িকার মিল হওয়ার পক্ষে!

৩] গান ও ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক- ড্রামা সিরিজ দেখার সাথে প্লেলিস্টেও রাখতে ইচ্ছে হয়!

৪] ধীরে ধীরে নায়ক-নায়িকার মাঝে  এমনই  ইমোশনাল আবহের প্রাদুর্ভাব যে সেন্টিমেন্টাল মানুষের  হৃদয়গ্রাহী না হয়ে উপায় নেই ^_^ ( Full House যেমন তিন দিনে দেখা হয়ে গিয়েছিল,তেমনি Heirs দেখার এক পর্যায়ে মনে হয়েছিল কিম তান আর চে সাং ইউন এর মিল না হলে রীতিমত হার্টব্রেকিং  ব্যাপার হবে!)

এমনই ড্রামা সিরিজ প্রীতির স্মৃতি রোমন্থন বাদে “My Love From the Star”  দর্শন।

cover

 

প্রাচীন চোসন রাজত্বের সময়কালে  এক এলিয়েন এসেছিল পৃথিবীতে। সুদীর্ঘ ৪০০ বছর বাদে  তার স্পেসশিপ আসার সময় হল। আর তিন মাসের অপেক্ষা। এমনই সময় এক  কোরিয়ান স্টার অভিনেত্রী (যাকে প্রথম দেখায় অহংকারী আর স্টুপিড বলেই মনে হয়! ;-))  তার প্রতিবেশী হয়ে এল যার উপদ্রবে তার এদ্দিনের শান্তির জীবনে দেখা দিল ঝঞ্ঝা!

 

image-46A5_52B06A69-horz

প্রায় এক দশক বাদে ( Daisy (2005) এর পর) রোমান্টিক ঘরানায় প্রত্যাবর্তন, সেই ১৪ বছর বাদে টিভি ড্রামায়- তার উপর বাড়াবাড়ি রকমের ফ্যাশন সচেতন নায়িকার চরিত্র ফুটিয়ে তুলতে মেকআপের  আতিশয্য  – জুন জি হিয়ন- কে নিয়ে এমন ভাবনার উদয় হতে না হতেই  তিনি  বিলীন হলেন চেওন সং ঈ-র মাঝে। আর তাই তো  “মানুষ বলেই তো সে  ভুল  করতেই পারে”- এমন নীতিতে বিশ্বাসী Cheon Song  Yi-র  arrogant  কমেডি,  আবেগ,পাগলামি,  দুঃখী কণ্ঠে গাওয়া রাপ সং ,সরি  বলা- সবই দারুণ উপভোগ্য হয়ে উঠল ।

296ef5822d6251e141536259ce773763

সব মিলিয়ে চেওন সং ঈ-কে sassy girl এর পরিণত রূপ বলাই যেতে পারে! :-)

tumblr_n0psaaay1V1rkcrmto1_400

 

আর সর্বজ্ঞানী এলিয়েন নায়ক ও প্রফেসর দো মিন জুনের  (পৃথিবীতে) বয়স ৪০০ বছরের চেয়ে ১ বছর কমও মনে হল না! The Thieves এ ছিঁচকে চোরের ভূমিকায় কিম সু হিয়নকে দেখার স্মৃতিও তাই মনে রইল না। সাইকোলজি নিয়ে তার চমৎকার লেকচার, টেলিপোর্টিং আর সময়কে থামানোর ক্ষমতাকে সাথে নিয়ে শেষমেশ এক কিউট, কেয়ারিং নায়ক হিসেবেই আবির্ভূত হলেন [আহা, এলিয়েনরা বাস্তবিকই  এমন হলে আর দল বেঁধে পৃথিবীতে চলে আসলে তো তো কথাই ছিল না! ^_^ 😛  ]

Korean_Drama_Quotes-You-Who-Came-From-the-Stars_01

“My Destiny”, “Back To The Future”, “Goodbye”, “Missing You”  এর মত সাউন্ডট্র্যাকগুলোর সাথে ড্রামাটি দেখতে দেখতে যেন পুরোমাত্রায় ফ্যান্টাসি-জ্বরে আক্রান্ত হলাম। ভাবলাম রয়েসয়ে দেখি, কিন্তু সেই যে- এক পর্বের পর পরবর্তী পর্বের জন্য অপেক্ষার তর সয় না! কারণ  স্বপ্ন-কল্পনাও যে এই ড্রামা সিরিজের পরবর্তী পর্বের কাহিনীপ্রবাহের  টেনশনে আচ্ছন্ন হয়ে পড়েছে!   একসময় মনে  হল – কি করে যে   মানুষ ১৩ পর্বের পর ১৪ তম পর্বের জন্য পুরো ১ সপ্তাহ অপেক্ষা করে ছিল !

0163f251c745e48aceac6c0d56b6972c

কমেডি- রোমান্টিক মেলোড্রামার মাঝে থ্রিলারের সাসপেন্স – সব মিলিয়ে ড্রামা সিরিজটি দর্শন ছিল  একটি রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা। কমেডি,ফ্যান্টাসির মাঝে দর্শন আর মনস্তত্ত্বের ব্লেন্ড করে অবিশ্বাস্য কাহিনীকে এতটা বিশ্বাসযোগ্য করে তোলার কৃতিত্ব পরিচালক জাং তায়ে ও নারী কাহিনীকার পার্ক জি ইউনকে দিতেই হয়। সিনেমাটোগ্রাফি ও স্পেশাল ইফেক্টের কাজও ছিল অসাধারণ।  তাই তো ড্রামা সিরিজটি দেখা  শেষ করেও  এমন রোমাঞ্চে আরও বেশ কিছুদিন আচ্ছন্ন হয়ে থাকতে ইচ্ছে করে। বেশ কিছু দৃশ্যকল্প যেন বারে বারে ফিরে আসে!

2f5c82c63ba94d0263765b465d0d198e

পর্বগুলোতে ৮,৯ রেটিং দিতে দিতে শেষ পর্যন্ত ড্রামা সিরিজটিকে ১০/১০ দিয়েই IMDb তে রিভিউ লিখলাম (The cutest, craziest, saddest, sweetest Korean drama I’ve ever seen… http://www.imdb.com/title/tt3469052/reviews-12 ) – – কারণ এটি শেষ পর্ব পর্যন্ত আমার রোমাঞ্চ, সাসপেশন, অবসেশন আর ফ্যান্টাসিকে একই ভাবে ধরে রেখেছিল ^_^ ।

3deb45d7ab0919ac2325e51c2cfc0d75

দো মিন জুন- চেওন সং ঈ – আমার দেখা সেরা ড্রামা কাপল- মোহগ্রস্ত হয়ে তাদের কত যে ভালবেসেছিলাম তা তো বলার অপেক্ষাই রাখে না! 🙂

You_Who_Came_From_the_Stars_OST_Special11

 

২১ পর্ব দীর্ঘ ( সাথে ১৫ পর্বের পর The Beginning নামের একটি স্পেশাল রিক্যাপ এপিসোড)এ ড্রামা সিরিজটি অগণিত ভক্তের হৃদয়ের সাথে Baeksang Drama Award, Asian Drama Festival  এর মঞ্চ জয় করেছে। অর্থকরী ভাবনায় সনি পিকচারস এর আমেরিকান রিমেক নির্মাণ ও ABC চ্যানেলে প্রচারের পরিকল্পনা বাস্তবায়নও চূড়ান্ত করেছে।

U47P5029DT20140528112448_1

My Love from the Star এর পাগলাটে জনপ্রিয়তার তোড়ে চায়নাতে কোরিয়ান বিয়ার রপ্তানি যেমন বেড়েছে ২০১ শতাংশ , এক জরিপে অংশ নেয়া ৯৫.৪ শতাংশ তাইওয়ানিজ জানিয়েছেন- এই ড্রামা দেখেই তারা কোরিয়া ভ্রমণে উৎসাহিত হয়েছেন। তাই তো ‘ঝোপ বুঝে কোপ মারা’-র মত কোরিয়ান সরকার জুনকে পর্যটন কর্পোরেশন আর কিম সো হায়ুনকে সিউলের অনারারি এমব্যাসাডর হিসেবে নিয়োগ দিয়েছে। অতএব আমিও আশ্বস্ত এই ভেবে- যাক,আমার মত লক্ষ YWCAS ভক্তকেও এই ড্রামা সিরিজ পুরো পাগলই বানিয়েছিল!  😀

images2large2 images

 

ট্রিভিয়াঃ

 

hyundai cfMV5BMjA2NDcwMjI4Ml5BMl5BanBnXkFtZTcwMDM0OTgyMQ@@._V1_SX640_SY720_

১]  বিখ্যাত কোরিয়ান হরর মুভি “A Tale of Two Sisters (2003)” এর সু-মি চরিত্রের জন্য পরিচালক কিম জি ওনের প্রথম পছন্দ ছিলেন জুন। তবে “বাড়াবাড়ি ভয়ংকর স্ক্রিপ্ট”ভেবে জুন প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন।তবে কাকতালীয়ভাবে মুভিটির আমেরিকান রিমেক “The Uninvited(2009)” নামকরণ জুনের ফ্লপ হরর “Uninvited(2003)” অনুসারেই হয়।

가족혜택6  nepa1

২] CF Queen জিয়ান্না জুন My Love from the Star এর তুমুল জনপ্রিয়তার পর ২০১৪ সালের প্রথম ছয়  মাসেই অ্যাড বাবদ আয় করেন ২২.১ বিলিয়ন ওন (প্রায় ২০ মিলিয়ন ডলার) -[ সাধারণ মানুষের  মজার সব প্রতিক্রিয়া – http://netizenbuzz.blogspot.com/2014/07/jun-ji-hyun-records-221-billion-won-in.html    ) ]। সাথে ২০ মিলিয়ন ডলারের রিয়েল এস্টেটের মালিকান হয়ে বর্তমানে কোরিয়ার সবচেয়ে সম্পদশালী অভিনেত্রীও তিনি।

 

৩] ২০১৪ সালের কোরিয়ার সেরা দশ এনটারটেইনারের পাশাপাশি এ বছর হলিউড রিপোর্টারসের বিশ্বের সেরা ২৫ প্রভাবশালী টিভি অভিনেত্রীর তালিকায়ও জায়গা করে নিয়েছেন।

 

মিউজিক ভিডিও  

   

[K-POP♩2000] TJ – Hey Girl MV with Jang Hyuk [  Windstruck এর বেচারা নায়ক! 😛 ]

 

* স্পয়লার সতর্কতা  – মুভি ও ড্রামা সিরিজ MV 

Must Say Goodbye – Il Mare (2000)

 

 

I Believe – My Sassy Girl (2001)

 

Reunion Theme- Windstruck (2004)

 

BK Love by MC Sniper- Windstruck (2004)

 

Parangeerato Chopta & Knocking on Heaven’s Door- Windstruck (2004)

 

Hey- Daisy (2005)

 

My Destiny – My Love From The Star (2014)

 

[MV] K.Will(케이윌) _ Like a star(별처럼) (My Love From the Star(별에서 온 그대) OST Part 2)

 

[MV] Hyolyn(효린) _ Good bye(안녕) (My Love From the Star(별에서 온 그대) OST Part 4)

 

[MV] Huh gak(허각) _ Tears fallin’ like today(오늘 같은 눈물이) (My Love From the Star(별에서 온 그대) Part 6)

 

[MV] Sung Si Kyung(성시경) _ Every Moment Of You(너의 모든 순간) (Original) (My Love From the Star OST)

 

ক্যারিয়ার-বৃত্তান্তঃ 

১৯৮১ সালের ৩০ অক্টোবর দক্ষিণ কোরিয়ার সিউলে জন্ম নেয়া ওয়াং জি হিয়নের স্বপ্নের গণ্ডি ছিল বড়জোর এয়ার হোস্টেস হওয়ার। কিন্তু একদিন রাস্তায় প্রতিবেশী ফ্যাশন ডিজাইনারের চোখে পড়তেই চলে এলেন বিনোদন জগতে। ১৯৯৭ সালে Ecole Magazine এর প্রচ্ছদে মডেল হিসেবে ঘটল অভিষেক। আর পারিবারিক নামটা একটু বদলে “স্টেজ নেইম” হল জুন জি হিয়ন।

1998

 

১৯৯৯ সালে “White Valentine” এর মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটলেও Samsung প্রিন্টারের অ্যাডের নাচ দিয়েইপ্রথম আলোচনার ঝড় তোলেন। তারপর রোমান্টিক মেলোড্রামা “Il Mare(2000)”- Joint Security Area র মত ব্লকবাসটার হিট মুভির সাথে একই  দিনে রিলিজ পেলেও কাহিনী-চিত্রায়নের গুণে মুভিটি অনেকটাই সাফল্য অর্জন করে (পরবর্তীতে ২০০৬ সালে মুভিটি হলিউডে The Lake House নামে রিমেকও হয়)

d5ac54335f8c995413369bcc56ae6db3 (1)
অতঃপর Kwak Jae Young পরিচালিত My Sassy Girl (2001)- পুরো এশিয়া কাঁপানো রোমান্টিক কমেডির সেই অনামা “The Girl” চরিত্রে অনবদ্য অভিনয় করেই তিনি অর্জন করলেন বিশ্বজোড়া খ্যাতি। তবে সাক্ষাৎকারে জানালেন, ব্যক্তিগত জীবনে তিনি নাকি “sassy girl” এর সম্পূর্ণ বিপরীত।
সে জন্যই বুঝি নিজেকে প্রমাণে বেছে নিলেন সম্পূর্ণ বিপরীতধর্মী চরিত্র- “Uninvited (2003)” মুভিতে এক সন্তানহারা মা-র ভূমিকায় আবির্ভূত হলেন। হরর ঘরানার মুভিটি বেশ বিরক্তিপ্রদ ও ফ্লপ হলেও জুনের অভিনয় অবশ্য সমালোচক-ধন্যই হল।

tumblr_inline_mreyeuRKii1qz4rgp     tumblr_mo8oh6iP5U1qetd4oo1_500

tumblr_n3vsa9VJXA1qbxx00o6_r1_250

 

তারপর আবারও Kwak jae young এর মুভি Windstruck(2004) এ sassy বেশে (দুর্ধর্ষ কপ কাইয়ুংজিন) হাজির হলেন। কিছু নেতিবাচক প্রচারণায় (My Sassy Girl এর মতই/ প্রিকুয়েল) কোরিয়ায় প্রত্যাশিত সাফল্য না পেলেও জাপানে ঠিকই মুভিটি বক্স অফিসে এক নম্বর জায়গা করে নেয়। [ আর ১০ বছর বাদে এক  আলস্যপ্রিয় এরবাংলা সাব  বানানোর প্রয়াস নেন 😛 ]

windstruck1 windstruck

tumblr_lqizxkIj4Z1qa7enqo8_r1_250_1

tumblr_losfi3ODMo1qa7enqo1_500 (1)_1

 

তারপর বক্স অফিসে ব্যর্থ কিন্তু সাড়া জাগানো রোমান্টিক কমেডি মুভি “Daisy(2005)” এ চিত্রশিল্পী হিয়ে ইয়ং , মনে দাগ কাটার মত সামাজিক ড্রামা মুভি “A Man who was Superman(2008)” এর কাঠখোট্টা সাংবাদিক সং, হলিউড ঘরানার “Blood-The Last Vampire (2009)” এর দুর্ধর্ষ সোরড ফাইটার-হাফ ভাম্পায়ার সায়া ( যে মুভিতে অভিনয় করতে তিন মাস ফাইটিংয়ের প্রশিক্ষণ নেন ও পাশ্চাত্য ধাঁচের “Gianna Jun” নাম ধারণ করেন) , হিস্টোরি ড্রামা “Snow Flower and the Secret Fan (2011)” এর সোফিয়া ও সানফ্লাওয়ার, বক্স অফিস সফল হেইস্ট মুভি The Thieves(2012) এ চোরের দলের ইয়েনিকল আর স্পাই থ্রিলার The Berlin File (2013) তে অনুবাদক রায়ুন – প্রতিটি চরিত্রে সাফল্যের সাথে ভিন্ন ভিন্ন আঙ্গিকে উপস্থাপিত হয়েছেন।

1323000975_740499

আর  টিভি ড্রামা Season of Puberty (1997), Fascinate My Heart (1998), Happy Together (1999) তে অভিনয়ের দীর্ঘ ১৪ বছর পর তুমুল জনপ্রিয় টিভি ড্রামা “My Love from the Star” aka “You Who Came From Another Star(2014)” -য় চেওন সং ঈ- চরিত্রে অভিনয় করে জানান দিলেন- তিনি যেমন sassy ছিলেন, তেমনটাই আছেন ও থাকবেন [অন্তত ক্যামেরার সামনে হলেও!  😀 ]

 

 

tumblr_mzx0kc3ot01revobio1_400_2

Dongguk University-র Graduate School of Digital Image and Contents (Theater and Film) থেকে মাস্টার্স সম্পন্ন করা জুন ২০১২ সালে জীবনসঙ্গী করে  নিলেন নিজের বাল্যবন্ধু ব্যবসায়ী ছোই-জুন-হিয়ককে (최준혁)।

jun-ji-hyun-wedding

 

দীর্ঘ ১৭ বছরের ক্যারিয়ারে ১১ টি মুভিতে অভিনয় করে পেয়েছেন অনেক পুরস্কার আর লাখো ভক্তের ভালোবাসা,সাথে শতাধিক অ্যাডে সেই sassiness এর সাথেই পারফর্ম করে পেয়েছেন “CF Queen” উপাধি।

jun-ji-hyun-540x540

 

যা লাগে নি ভালো! 

১] মুভির কথা বলতে প্রথমেই আসে-  Uninvited (2003) – নিজের দেখা অন্যতম বোরিং-  মুভি – অভিনয় নিয়ে প্রশ্ন নেই, কাহিনীই বড় বিরক্তিপ্রদ :\   –

২] ‘অতি অ্যাডে অ্যাডোরেবল ইমেজ নষ্ট!” – আর সে কারণে তার বেশ কিছু CF একদমই ভালো লাগার  নয়।  প্রচুর অর্থকরী বলেই বুঝি অনেক অ্যাডের কনসেপ্ট নিয়ে সচেতন (মুভি- ড্রামার মত) হবার অবকাশই পান নি।Windstruck এর মত মুভির প্রত্যাশিত সাফল্য না পাওয়ার পেছনে  তার এই ‘বাড়াবাড়ি সংখ্যক ( ও উদ্ভট) অ্যাড করার প্রবণতা”  বেশ দায়ী ছিল। সম্প্রতি চায়নার মিনারেল ওয়াটার ও বিয়ারের নকল বিজ্ঞাপন করেও সমালোচনার মুখে পড়েছেন।  :\

 

শেষ কথা 🙂 [ এতক্ষণে! ] 

এত সব ভালো প্রোডাকশনে কাজ করার সুযোগ লাভ যেমন সৌভাগ্যের ব্যাপার, তেমনি ভাগ্যের পরশ কাজে লাগিয়ে এক যুগেরও বেশি সময় নিজের ফিটনেস বজায় রেখে কিউটনেসের পরিচয় দেয়াও বেশ একাগ্রতার ব্যাপার বটে [ তাই তো অনেকের মতে- My Love From The Star ড্রামার আসল এলিয়েন জিয়ান্না জুন- সময়ের সাথে বুড়ি হওয়ার বদলে উল্টো প্রমাণ করেছেন- Aging is good! ]  ;-)

 

10299553_311105149055240_7337980553112765690_n

 

তাই তো My Sassy Girl এর The Girl আর Windstruck এর কাইয়ংজিন,   অনেক অ্যাডে দেখা এক কিউট  CF Queen, My  Love From The Star এর Cheon Song Yi – উচ্ছলতা, প্রাণবন্ততা,তারুণ্য, ঔদ্ধত্য মিলিয়ে পর্দায় যে অদ্ভুত মজাদার আর  আত্মবিশ্বাসী এক চরিত্র ভেসে ওঠে sassy girl এর সংজ্ঞা আর  সমার্থকতা  তাতেই খুঁজে পেয়েছি  ! :-)

 

Jun Ji Hyun my sassy girl

#happybirthdayjunjihyun  ‪#‎HappyJunjihyunday‬  – সমাপ্ত  :lol:

#বছর তিনেক পর প্রকাশিত পরবর্তী পর্ব- My Sassy Girl Jun Ji-Hyun এর যত মুভি-ড্রামা-বিজ্ঞাপন পর্ব ৫+(১৯৯৭-২০১৭)- ২০ বছরের ক্যারিয়ার-আজ ৩৬ তম জন্মদিন!

 

 

 

 

এই পোস্টটিতে ৫ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. Rifat Sharna says:

    ধন্যবাদ বায়োস্কোপ ব্লগ 🙂

  2. ওয়াও, পুরোটা পড়লাম। আভ্ল লেগেছে। কিন্তু ডাউনলোড লিঙ্ক পেলে আরোও ভাল লাগত। ধন্যবাদ আপনাকে।

    • রিফাত স্বর্ণা says:

      অনেক ধন্যবাদ 🙂
      উনার সব মুভি-ড্রামাই নেটে বেশ সহজলভ্য, সার্চ দিলেই পেয়ে যাবেন আশা করি 🙂

  3. nazrul islam says:

    অসাম একটা পোষ্ট । জিয়ান্না জুন <3 । My love fromthe stars দুইদিন আগে দেখলাম । জাস্ট অসাম । জিয়ান্না জিনের কমেডির সাথে কিছুর তুলনা হবে না

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন