ময়ূখ বারীর হাতে সফল বাংলার টাইম ট্রাভেল নাটক “আয়না রহস্য”
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

1779843_663820640344995_716967078_n

সাইন্স ফিকশন/ টাইম ট্র্যাভেল / ফ্যান্টাসি – এই শব্দগুলার সাথে যদি বাংলা নাটক জুড়ে দেই, শুনতে ঠিক বিশ্বাসযোগ্য লাগে না। বাংলাদেশী নাটক মাথায় আসলেই কয়েকটা গতানুগতিক ধরন – পুতুপুতু প্রেম”/ আঞ্চলিক ভাষার গ্রামের নাটকের নামে ভাঁড়ামি”/  টিপিকাল টিন-এজ রমেডি… ঘুরে ফিরে সবই একই ধরণের গল্প, যেগুলা শেষ পর্যন্ত দেখার মত ধৈর্য আমাদের বেশীরভাগেরই নাই। হঠাৎ হঠাৎ শাহিন স্বাধীন, তানিম রহমান অংশু, আশফাক নিপুণ, আদনান আল রাজীবরা কিছু কাজ নিয়ে আসে যেগুলা সত্যি সত্যি গল্প, স্টোরিটেলিং, নির্মাণ, পান্ডুলিপি, অভিনয় সবদিক থেকে হয় উদ্ভাবনী কিছু, ভিন্ন কিছু… ভালো কিছু।

কাল পরিচয় পেলাম আরেকজন তরুণ নির্মাতার পরিচয় তার “আমার দেখা” প্রথম কাজ – “আয়না রহস্য”। কেন্দ্রে বর্তমান প্রজন্মের “হুমায়ূন ফরিদী” – আফরান নিশো! এই ছেলে যত দিন যাচ্ছে তত অবাক করছে তার চরিত্র বাছাইর গুণে। বলা বাহুল্য ভালো ভালো বেশীরভাগ কাজই তার হাতে আসছে। এমন একজন যে তার সুদর্শন ইমেজের বাইরে এসে একজন অভিনেতা এখন। একমাত্র তার কাজ আমি দেখতে বসলে দেখতে থাকি, নাটক যাই হোক, তার চরিত্রধারন ক্ষমতা সমসাময়িক অন্যদের তুলনায় কয়েক গুণ উপরে। চরিত্র পরিবর্তনের সাথে সাথে সবসময় রূপসজ্জায়, চলনবলন, অভিব্যক্তি সবকিছুতে পরিবর্তন আনতে সচল থাকেন তিনি। তবে তার অভিনয়ের আগে পান্ডুলিপি, চিত্রনাট্য আর পরিচালনার কথা না বললেই নয়।

11238971_1619742611626984_3907048795629927142_n

এই কনসেপ্ট সেলুলয়েডের জন্য লিখে পার পেয়ে যাওয়ার ক্ষমতা কারো আদৌ আছে কিনা আমার জানা ছিলনা। রোমাঞ্চে ঠাসা এই ১ ঘন্টার এই ভিডিও ফিকশনটির প্রথম এক্ট একটু স্লো হলেও দ্বিতীয় এক্ট রিভেটিং।

প্রেমের প্রথম অধ্যায় যখন মনের কথাটি পর্যন্ত প্রান্তবদল করেনি, তখন অকস্মাৎ মৃত্যু কেড়ে নেয় জীবন। অব্যক্ত কথা হাতে লেখা চিঠিতেই বন্দী থেকে যায়। নিঃশ্বাসে নিঃশ্বাসে ব্যবধান কাটানোর সময়টুকুও ছিনিয়ে নেয় নিয়তি। বিধ্বস্ত হতবিহবল ছেলেটি খুঁজে পায় এক মায়াবী আয়নার যেখানে অবিকল তারই মত দেখতে কেউ তাকে তিন তিনটা সুযোগ দেয়। টাইম ট্রাভেল করে অতীতে যেতে পারবে সে কিন্তু কিছু কঠিন শর্তের বিনিময়ে। রেকলেস রেস্টলেস ছেলেটি শুরু করে…

11149573_896331310388264_9213923435032592378_n

এর মাঝেও প্লট হোল খুঁজে পাবেন হয়ত অনেকেই যদি সেভাবে দেখেন। টুইস্টটা ধরেও ফেলবেন হয়ত খুব সাইন্স ফিকশন পটু কেউ কেউ। গল্পের ন্যারেশানে বোর হতে পারেন। ঐ একটাই সমস্যা লেগেছে। গল্পের ভার অনুযায়ী প্রেক্ষাপটটা ঠিক জমেনি। প্রথম এক্টটা একেবারেই ম্যাড়ম্যাড়ে থেকে যায়। সেখানে আরেকটু সিরিয়াসলি কাজ করলে আরও ভালো একটা প্রোডাক্ট হতে পারত। যাই হোক, এটা আমার ব্যক্তিগত মতামত।

376504_249317341795329_743957872_n

সবকিছু ছাপিয়ে শেষ করার পর খানিকটা অতৃপ্তি থেকে যায় কেন জানি, মনে হয় আহারে – আবার কবে এধরণের কনসেপ্টে কিছু পাবো বাংলা নাটকে। নিশো তো ফাটায় দিলেন। আজকাল খুব কম হলেও এমন কিছু নাটক হচ্ছে যেগুলা বছরে আরও দু চারটা বেশি হলে বাংলা নাটক নিয়ে আরও বুক ফুলিয়ে কথা বলা যেত। বাংলা সিনেমায় সাহসী গল্প না আসুক, নাটক/ ভিডিও ফিকশনই সই।

সাবাস ময়ুখ বারী, এ ধরণের সাইন্স ফিকশন ঘরানার আরও কিছু কাজ আশা করছি আপনার কাছে। আপনাকে আর আপনার পুরা ক্রুকে অভিনন্দন।

এই পোস্টটিতে ৭ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. Sajib Banik says:

    natok ta valo legechilo.But finishing ta so fast holo.

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন