রাজনীতি জমজমাট গল্পের বানিজ্যিক ছবি
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

মুভি রিভিউ – রাজনীতি 

– রমিজ, ২৩-০৭-১৭

রাজনীতি জমজমাট গল্পের বানিজ্যিক ছবি।
নির্মাতা বুলবুল বিশ্বাস নতুন হিসেবে বেশ ভাল নির্মানশৈলী দেখিয়েছেন। শুরু এবং শেষের গতানুগতিক বিষয় গুলো ছাড়া কোথাও বোর হওয়ার সূযোগ নেই। কিন্তু কয়েকটা বিষয় খুবই দৃষ্টিকটু লেগেছে।

শাকিব খানের চুলের স্টাইল চরিত্রানুযায়ী একেবারেই বেমানান। সাউথ আফ্রিকা থেকে পড়াশুনা করে দেশে ফেরা একজন (যে কিনা আবার সরকার প্রধানের ছেলে) তার চুলের স্টাইল এমন খ্যাত কিভাবে হয় ? নির্মাতার কাছে কি বিষয়ে কোন জাস্টিফিকেশন আছে ?

চুলের স্টাইলের কন্টিনিউটির বিষয় তো বাদই দিলাম … শাকিবের ড্রেস ও খুবই খ্যাত ছিলো। একই ডিজাইনের ফুল হাতা শার্ট ভিন্ন ভিন্ন রঙ্গে বার বার শাকিবের গায়ে দেখা গেছে … সে শার্টের ডিজাইন যেমন খ্যাত, কালার ততো কটকটা … শাকিব খান এ ছবিতে বিদেশ থেকে পড়াশুনা করা সরকার প্রধানের ছেলে … রিক্সাওলা চরিত্রে অভিনয় করা নায়করাও এর চেয়ে ভাল গেট আপে পর্দায় হাজির হয়… সাথে শাকিব খানের চিরচেনা মেকি অভিনয় তো আছেই … বলতে খারাপ লাগছে তবু বলছি এ ছবির শাকিব খান আমার দেখা তার ক্যারিয়ারের সবচেয়ে ফালতু শাকিব খান …

আরেকজন হচ্ছেন তার সহধর্মীনি অপু বিশ্বাস। সে স্বাভাবিক কথাও এমন চিৎকার আর কিঁচিমিচি করে বলে যে কানের পর্দার সহ্য ক্ষমতার লেভেল ছাড়িয়ে যায় … এটাকে অভিনয় বলে ?

 

রিভিউটি ভিডিও ভার্সনে দেখুন নিচের লিঙ্কে …

 

শাকিব খান এবং অপু বিশ্বাস স্বামী-স্ত্রী; অথচ শেষ দৃশ্যটি ছাড়া কোথাও তাদের কেমেষ্ট্রি চোখে পড়েনি …
আর সরকার প্রধানের ছেলেরা, বিরোধী দলের নেতার মেয়ে শাখারী বাজারে হলি খেলছে … বাংলাদেশে এরকম রাজনীতির পরিবেশ থাকলে তো ভালই হতো … আরো অবাক করা বিষয় তাদের বাড়িতে, এমনকি বেড রুমেও যে কেউ যখন তখন ঢুকে পড়তে পারে … নিরাপত্তার কোন চিন্তাই নেই … অথচ ঢাকার সাধারন একটা বাড়িতেও ঢুকতে অন্তত একজন দারোয়ানের নানা প্রশ্নোত্তরের মুখোমুখি হতে হয় …

 

অপুর আত্মহত্যার দৃশ্যটাও একেবারেই কনভিন্সিং না … আত্মহত্যার আগে সে খুব সেন্সিবল কিছু কথা বললো যা এ ছবির সেরা দিক গুলোর একটি … কিন্তু পরক্ষনেই সে আত্মহত্যা করে বসলো … খুবই অপ্রয়োজনীয় এবং দৃষ্টিকটু একটা ঘটনা …

শাকিব খান রাজনীতি

 

বুলবুল বিশ্বাস ন্যাশনাল টিভিতে এসে নবাব ছবিতে গানের মধ্যে হিন্দী ব্যাবহারের তীব্র নিন্দা করলেন ; অথচ তার ছবিতে আবার উর্দু কথার গান দেখলাম … যদিও তার গান গুলো মেনে নেয়া যায় … সিচুয়েশন অনুযায়ী গান গুলো যায় …

কিন্তু  আপনার আনিসূর রহমান মিলন অপু বিশ্বাসকে দেখে মনের ভিতরে উর্দু গান বাজাতে পারলে নবাবে কলকাতার দুই ছেলে মেয়ে তাদের প্রেমের গানের মধ্যেও হিন্দী কথা ঢুকাতে পারে … যদিও আমি বাংলা গানে অপ্রয়োজনীয় হিন্দী শব্দ ঢুকানোর তীব্র বিরোধী …

 

তবে বুলবুল বিশ্বাসের ছবিটি পুরোপুরি নন্সেনসিয়াল কোন ছবি না … বরং ছবিটা অন্য দশটা গতানুগতিক ছবি থেকে অনেক দিক থেকেই উন্নত …

যেমন নির্মাতা ছবিটিকে জমজমাট একটা গল্প ও চিত্রনাট্যে নির্মান করেছেন। ফলে ছবিটা দর্শকদের শেষ পর্যন্ত ধরে রাখবে। ছবির সেট খুব ভাল লেগেছে। কিছু কিছু জায়গায় সিনেমাটোগ্রাফীও বেশ ভাল। মিউজিক বেশ উপভোগ্য ছিলো। এডিটিং শার্প এবং অন্য দশটা গতানুগতিক ছবি থেকে তো অবশ্যই ভাল।
ছবির আরেকটি ভাল দিক হচ্ছে সাপোর্টিং এক্টরদের অভিনয়। নির্মাতা শাকিব-অপুর বিরক্তিকর অভিনয় থেকে দর্শকদের বাঁচিয়ে দিয়েছেন আনিসূর রহমান মিলনকে কাস্ট করে। মিলন ছবির শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত দর্শকদের নিজের করে নিয়েছেন। তার গেট আপ থেকে শুরু করে চোখ মুখের এক্সপ্রেশন পর্যন্ত শাকিল চরিত্রটিকে ধারন করেছে। আর তার ডায়লগ ডেলিভারি হাত তালি পাওয়ার মতো।

আনিসূর রহমান মিলন রাজনীতিকে প্রান দিয়েছে তাতে কোন সন্দেহ্‌ নেই …এ ছাড়া অন্য আরো অনেকেই খুব ভাল অভিনয় করেছেন … মিলন এবং শাকিবের মায়ের চরিত্রের অভিনেত্রী কিছু জায়গায় অসাধারন … অপু বিশ্বাসের পাশের বাড়ীর ভাবী চরিত্রের মহিলা ছোট্ট চরিত্রে দারুন … অমিত হাসান গতানুগতিক হলেও বাকি ভিলেইনরা সবাই উপভোগ্য ছিলেন … মুলত শাকিব-অপুর অভিনয় ব্যার্থতা মিলনসহ অন্যরা দারুন ভাবে রিকভার করে দিয়েছে্ন … নির্মাতাকে এখানে প্রশংসা না করলেই নয় … ছবি শুধু শাকিব-অপুর মধ্যে না রাখে সব চরিত্রকেই কম বেশী স্পেস দেয়া হয়েছে … ফলে ছবিটি কিছুটা হলেও উপভোগ্য হয়েছে …

সবমিলিয়ে, রাজনীতি দেশী বানিজ্যিক ছবি হিসেবে অবশ্যই উপভোগ্য একটি ছবি। শাকিব-অপুর ডিসাস্টারাস্‌ লুক আর পারফরমেন্স এবং চিত্রনাট্যে কিছু কিছু নট সো কনভিন্সিং বিষয় বাদ দিলে বাংলা বানিজ্যিক ছবি হিসেবে ছবিটি অন্য দশটা ছবি থেকে তো অবশ্যই উপভোগ্য।

 

আমি ছবিটিকে দিবো ৩*। অর্থাৎ ৬০% মার্কস্‌ বা A- গ্রেড

 

ঈদের অন্য দুই ছবি নবাব এবং বস টু ছবির রিভিউ দেখুন এখানে =>>

নবাব রিভিউ =>> http://bioscopeblog.net/ramizraza/60069

বস টু রিভিউ => http://bioscopeblog.net/ramizraza/60072

এই পোস্টটিতে ৪ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. আগ্রহ নিয়ে দেখেছিলাম কিছুটা পুরাই জগাখিচুড়ি।

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন