Breaking Bad এর রিপ্লাই
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

Gomorra: La Serie (2014……), Country : Italy
Season 3 episode 48, & Season 4 coming 2019……

বলা হয়ে থাকে এটি ‘’Breaking Bad’’ এর ইতালিয়ান ভার্সন। টিভি সিরিজের পোস্টারেই লিখা আছে ‘’Italy’s Answer to ’Breaking Bad’’. তবে কতটুকু জবাব দিলো, দাঁত ভাঙ্গা জবাব দিলো নাকি  হুদাই ফাঁপর নিলো যারা ’Breaking Bad’’ দেখেছেন তারাই এই  সিরিজ দেখে বলতে পারবে। ইতালিয়ান লেখক রবার্ত সাভিনো এর গল্প Gomorra থেকেই নির্মিত এই  সিরিজ নির্মিত নাম  Gomorra । ভায়োলেন্স,  সেক্স, ড্রাগস, হিংসা – প্রতিহিংসা, প্রতিশোধ পরায়ণ আর একশন ভরপুর সিরিজটি তার নিজস্ব সংস্কৃতি বজায় রেখেছে। কপি করে পেস্ট মেরে দেয়নি। মুলত  ড্রাগস সম্রাজ্যের উত্থান পতন , নতুনের সাম্রাজ্যের  আবির্ভাব এ সিরিজে দেখানো হয়েছে।

’Breaking Bad’’ এ যেমন  walter white  মানে Heisenberg এর বিপ্লব ঘটে নিউ মেক্সিকোতে । তার দুটো পরিচয়। একজন ক্যামিষ্ট্রির শিক্ষক যাকে সবাই walter white নামেই চিনে। কিন্তু অপরাধ জগতে যে কিনা Heisenberg নামেই পরিচিতি লাভ করে। মেথ বাজারজাত করতে আর এই মার্কেট নিজের হাতে আনতে  কখনও জীবনের ঝুঁকি আর অনেক বিপদ মোকাবেলা করতে হয়েছিলো । আর পুলিশের ভয় তো সব সময় ছিলো। কারন নিজের ঘরেই ছিলো একজন পুলিশ। তার সুমন্ধি।  টুকু,  গাসদের মত বড় বড় ডনদের সাথে ঠান্ডা মাথায় মোকাবেলা করতে কখনও পিছপা হয়ানি। সামান্য এক শিক্ষক থেকে অসামান্য Heisenberg হয়ে উঠা যেমন আমরা ’Breaking Bad এ দেখতে পায়েছি।

ঠিক এই  Gomorra সিরিজেও  সামান্য থেকে অসামান্য একজনের ড্রাগ লর্ড বা ডন হয়ে উঠানোটাই দেখানো হয়েছে। যেখানে  এক ডনের সামান্য কর্মচারী থেকে ডন বা ড্রাগ লর্ড হয়ে উঠে । সাহস বুদ্ধি আর ঠন্ডা মাথা দিয়ে  ইতালির আরো অনেক বড় বড় ড্রাগ কার্টেল আর কার্টেলদের বস বা ডনদের মোকাবেলা করতে হয়েছিলো। কখনও মাথা নত করতে হেয়েছে কখনও বা আপস করতে হয়েছে কিন্তু এর মধ্যে নিজের স্বার্থও উদ্ধার করেছে।

দুটো সিরিজের একটাই মিল সেটা হলো  ক্ষমতা অপব্যাবহার আর সঠিক ব্যাবহার। আর ড্রাগস ডিলিং তো আছেই।

এই বার আসি Gomorra সিরিজের কিছু সংক্ষেপ কাহিনী নিয়ে।  মাদক, ড্রাগস আর অপরাধের সাম্রাজ্য  হলো ইতালির নেপলস শহর। আর এই সাম্রাজ্যের সম্রাট , সাভাস্ত ক্লান এর প্রধান হলো ডন পেয়িত্র। আর তার ডান হাত হলো সিউরো যে কিনা তার ছেলের খুব কাছের বন্ধু। কিন্তু হটাত পেয়িত্রকে পুলিশ ধরে নিয়ে যায় কিন্তু তার অল্প সময়ের মধ্যে জামিন হচ্ছে না। হাজতে যেতে বাধ্য হয় পেয়িত্র। জেল খানায়ও তার কি সম্মান। তাতে কি যে ডন সে জেল খানায়ও ডন। কিন্তু এখন সাম্রাজ্য সামলাবে কে। এদিকে তার ছেলে জেনী মাথা গরম আর ছেলে মানুষী টাইপের। সিউরো কে দায়িত্ব দেওয়া হয় তাকে গাইড লাইন দেওয়া জন্য কিন্তু সিউরর কথা মত সব কিছু করেনা জেনি। পেয়িত্রের সাথে দীর্ঘদিন যারা সাম্রাজ্য চালিয়েছে সেই সব বাবার বয়সি সিনিয়রদের যথার্থ সম্মান দেয়নি জেনি।এদিকে আধিপত্য বিস্তার করতে স্পেন থেকে আসে আরেক মাফিয়া ডন স্লাভাতর। কিন্তু ডন স্লাভাতরকে কি করে সামাল দিবে জেনি ।এদিকে পেয়িত্রের সাম্রাজ্য ধংসের পথে । জেনির কিছু বন্ধু ও তার বাবার সাথীরা মৃত। জেনি আহত। ডন পেয়িত্র ব্যাক। কিন্তু তার রাজত্ব না থাকায় ডন পেয়িত্র অন্যত্র চলে যায়। কে হবে নেপলস এর ডন । একদিকে শত্রু পক্ষডন পেয়িত্র  আরেক দিকে ডন স্লাভাতর আর পুলিশের  দৌড়াত্ব তো আছেই। আছে আরো ইতালির রোমে আরো কত ডন। কে হবে ডন দের ডন আর বিশাল ড্রাগস সাম্রাজ্যের মালিক……।। সিউরো কি পারবে সব সামাল দিতে………?? একমাত্র ভরসা সিউরো………।। কারন ঠান্ডা মাথায় খুব সুন্দর ভাবে ডন গির করা যায়, ক্ষমতা অপব্যাবহার  আর অহংকার থাকলেই আশপাশের শত্রু ঠিকই ফাদ পেতে শিকার ধরে ফেলবে। যেমন ভুল জেনি করেছিলো।  জেনির ভুল গুলো কেমন ছিলো আর সিউরো কিভাবে থান্ডা মাথায় সব সামলে ছিলো তা সিরিজটা দেখলেই বুঝা যাবে।

Breaking   Bad’ ও Gomorra দুইটাকে আমি যমজ ভাই বলতে চাই। তবে এটা কি সব সময় যমজ ভাই দেখতে  এক রকম হয়না । বুদ্ধি মত্তা আর চিন্তা ভাবনার মধ্যে পার্থক্য থাকে। সে দৃষ্টিকোন থেকে বিচার করেলে আমি Breaking   Bad’ কে প্রধান্য বেশি দেবো। Gomorra কে এজন্যেই পিছিয়ে রাখব কারন অপরাধীদের  যে আলাদা জীবন আছে, পরিবার আছে  সেই জীবনটাকে আরেকটু সুন্দর করে চাইলে দেখাতে পারতো কিন্তু সেটা দেখায়নি।

Breaking   Bad’ ও Gomorra দুইটাই ক্রাইম ড্রামা। আর অসাধারণ টিভি সিরিজ। Breaking   Bad দেখার পর যদি কেউ  ড্রাগ লর্ড মাফিয়া বা ডন টাইপ সিরিজ যদি দেখতে কেউ চায় তাহলে চোখ বন্ধ করে Gomorra দেখা উচিত। নিজের গালে থাপরাইতে মন চাইতেছে কেন আগে দেখলাম না। সিজন  ফোর আসার আগে তিনটা সিজন দেখে  নিন।

Breaking   Bad =  Golden A+

Gomorra =  A+

এই পোস্টটিতে ৭ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. Anik Dev says:

    চিরো মারা যাবার পর খুব খারাপ লাগছিলো

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন