Léon: The Professional (1994) রিভিউ
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

Movie Name: Léon: The Professional (1994)
IMDB Rating: 8.6 (28th Position of Top 250 Movies)
Rotten Tomatoes: 94% (Audience) & 79% (Critics)
Starring: Jean Reno, Natalie Portman, Gary Oldman

Leon (Jean Reno) ইতালি থেকে আমেরিকায় আসা একজন প্রফেশনাল কিলার, সে Tony নামে একজন মাফিয়ার জন্য কাজ করে। অর্থের বিনিময়ে কন্ট্রাক্ট কিলিং এর কাজ করা Leon এর পেশা হলেও সে কিছু নীতি মেনে চলে, তার ভাষায়, “I’m a cleaner but no woman, No children”. অর্থাৎ নারী এবং শিশুদের কিলিং এর কাজ সে গ্রহন করে না।

Leon এর পাশের ফ্ল্যাটে থাকে ১২ বছরের কিশোরী Mathilda (Natalie Portman), (যদিও সে তার বয়স জানতে চাইলে বলে ১৮), সে তার অত্যাচারী বাবা, সৎ মা এবং সৎ বোনের বাজে আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে কিছুটা বেপরোয়া জীবন কাটায়, স্কুল ফাঁকি দেয় এবং এইটুকু বয়েসেই সিগারেটে আসক্ত। এই পৃথিবীতে সে একমাত্র তার ছোট ভাইকে ভালোবাসে। তার বাবার আচরণ দেখলেই সন্দেহ হয় যে সে অসৎ কর্মকাণ্ডের সাথে জড়িত।

Stansfield (Gary Oldman) পুলিশের মাদকদ্রব্য সংক্রান্ত বিশেষ শাখার একজন দুর্নীতিগ্রস্ত অফিসার, সে মাটিল্ডা’র বাবার কাছে কোকেন রাখতে দেয় এবং মাটিল্ডা’র বাবা অর্থের বিনিময়ে বিভিন্ন মাদকদ্রব্য নির্দিষ্ট সময়ের জন্য নিজের কাছে রাখত এবং পরে চাওয়া মাত্র তা ফেরত দিয়ে দিত। কিন্তু একবার Stansfield সন্দেহ করে যে মাটিল্ডা’র বাবা কিছু কোকেন নিজের কাছে রেখে দিয়েছে। Stansfield তাকে সময় বেঁধে দেয় এবং বলে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই গোপনে রাখা কোকেন ফেরত দিতে নয়তো অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে। পরদিন নির্দিষ্ট সময় পেরিয়ে গেলেও Stansfield তার চাহিদামত কোকেন ফেরত না পাওয়ায় তার দলবল নিয়ে এসে মাটিল্ডা’র পরিবারের সকল সদস্যকে হত্যা করে। মাটিল্ডা বেঁচে যায় কারণ সে সেই সময় ডিপার্টমেন্টাল স্টোরে শপিং করছিল। মাটিল্ডা শপিং শেষে ফিরে এসে বিপদ আঁচ করতে পেরে নিজের বাড়ির দিকে না তাকিয়ে সোজা Leon এর ফ্ল্যাটের দিকে হাটা শুরু করে। Leon প্রথমে দরজা খুলতে না চাইলেও পরে বাধ্য হয়ে দরজা খুলে তাকে নিশ্চিত মৃত্যুর হাত থেকে রক্ষা করে।

Leon একা জীবনযাপনে অভ্যস্ত সে চায়না তার সাথে কেউ থাকুক। মাটিল্ডাকে সে আশ্রয় দেয় ঠিকই কিন্তু পরদিন সকালেই তাকে চলে যেতে বলে, কিন্তু এই শহরে মাটিল্ডা’র কেউ নেই, কোথায় গিয়ে থাকবে সে? অবশেষে Leon মাটিল্ডাকে নিজের কাছে রাখতে সম্মত হয়। Leon একজন প্রফেশনাল কিলার তা জানতে পেরে মাটিল্ডা তাকে বলে- বাবা, সৎ মা এবং সৎ বোনের মৃত্যুতে তার কোন আফসোস নেই তবে চার বছর বয়সী ছোট ভাইটির হত্যার প্রতিশোধ সে নিতে চায় এবং এই কাজে সে Leon কে সাহায্য করতে অনুরোধ করে, কিন্তু Leon কাজটি করতে অস্বীকৃতি জানায়। এরপর মাটিল্ডাকে অস্ত্র চালানো শিখতে চায় এবং অনেক অনুরোধের পর Leon কে রাজি করায়। এরপর চলতে থাকে প্রশিক্ষণ। মাটিল্ডা কিছুটা দক্ষ হয়ে যাওয়ার পর Leon তাকে নিয়ে কিছু মিশনে অংশ নেয় এবং মাটিল্ডার উপস্থিত বুদ্ধিতে সবগুলো মিশন সফল হয়। তবে শেষের মিশনটিতে তাদের কৌশল শত্রুরা বুঝে ফেলে এবং তারা অল্পের জন্য বেঁচে চায়। এর মাঝে একদিন মাটিল্ডা জানায় সে Leon কে ভালোবাসে, ১২ বছরের একটা মেয়ের মুখ থেকে এমন কথা শোনার জন্য Leon প্রস্তুত ছিল না। সে হতভম্ব হলেও বিষয়টাকে তেমন পাত্তা দেয়নি। অপরদিকে একটি বড় মিশনে যাওয়ার সময় Leon মাটিল্ডাকে সাথে না নিয়ে একাই চলে যায়, কারণ তার মনে হচ্ছিল সে সেখান থেকে হয়ত বেঁচে নাও ফিরতে পারে। Leon চলে যাবার পর মাটিল্ডা অস্ত্র নিয়ে Stansfield এর সন্ধানে বের হয়, এর আগেই সে Leon এর অজান্তে Stansfield কে ফলো করে তার অফিসের অবস্থান নিশ্চিত করে। খাদ্য সামগ্রীর ব্যাগে অস্ত্র নিয়ে সে ভেতরে ঢুকে পড়ে, কিন্তু ধুরন্ধর Stansfield বিষয়টা আগেই বুঝতে পেরে মাটিল্ডার দিকে অস্ত্র তাক করে, ঠিক সেই সময় একজন খবর নিয়ে আসে যে তাদের ডিপার্টমেন্টের একজন পুলিশকে ইতালিয়ানদের মত দেখতে একজন কিলার হত্যা করছে। এই ঘটনা শুনে Stansfield প্রচণ্ড ক্ষিপ্ত হয়, তবে মাটিনল্ডার দিক থেকে অস্ত্র সরিয়ে নেয় এবং তাকে একটি রুমে আটকে রাখতে বলে।

Leon তার বড় মিশনটি শেষ করে বাসায় ফিরে এসে মাটিল্ডার লেখা একটি চিরকুট দেখতে পায় এবং তাতে লেখা যে সে ভাইয়ের হত্যার প্রতিশোধ নিতে যাচ্ছে। Leon চিরকুট পড়েই দ্রুত অস্ত্র নিয়ে মাটিল্ডার সন্ধানে বেরিয়ে পড়ে এবং তাকে উদ্ধার করতে চার-পাঁচজন পুলিশকে হত্যা করতে হয়। এরফলে পুলিশ বিভাগ ভীষণ ক্ষিপ্ত হয়ে যায়। Stansfield টনির কাছে গিয়ে জোরপূর্বক Leon এর বাসার ঠিকানা জেনে নেয় এবং বিশাল ফোর্স নিয়ে Leon এবং মাটিল্ডাকে হত্যার উদ্দেশে বেরিয়ে পড়ে। এখন Leon কি পারবে মাটিল্ডাকে রক্ষা করতে? অথবা সে কি নিজে বাঁচতে পারবে?

শেষ দিকে ঘটনার আকস্মিকতায় এবং উত্তেজনায় দর্শককে চেয়ারের সাথে জমিয়ে ফেলার মত একটি মুভি, যা দেখলে হৃদকম্পন স্বাভাবিক রাখার কোন উপায় নেই। ছবিটি দীর্ঘদিন থেকে IMDB Top 250 মুভির তালিকায় অবস্থান করছে এবং কয়েকমাস আগেও ৩৯ নম্বরে ছিল এবং ধীরে ধীরে অবস্থান উপরের দিকে চলে আসছে যার ফলে এখন অবস্থান ২৮ নম্বরে। এটি ফ্রান্সের তৈরি মুভি তবে এর ভাষা ইংলিশ। নিশ্চিতভাবে বলা যায় যদি মুভিটি হলিউডের তৈরি মুভি হত তবে প্রচারণার জোরে এর অবস্থান আরো উপরে থাকতো। আর আমার রেটিং ৯।

আর অভিনয়ের কথা যদি বলতে হয় Leon চরিত্রে অভিনয় করেছেন Jean Reno যিনি বিশ্বের বহু ভাষার ছবিতে অভিনয় করেছেন, তার অভিনয় এককথায় অসাধারণ। আর Natalie Portman এর এটি প্রথম ছবি, সে সময় তার বয়স ছিল মাত্র ১২ বছর, কিন্তু বয়স ১২ হলে কি হবে, তার অভিনয়ে মুগ্ধ না হয়ে পারা যায় না। তার সৌন্দর্য এবং অভিনয় দক্ষতা দেখে সে সময় অনেকেই মন্তব্য করেছিল যে সেরা অভিনেত্রীদের তালিকায় নিজের নাম যোগ করা তার জন্য শুধু সময়ের ব্যাপার।

আর ছবিটির একটি দৃশ্য ধারণের সময় একটি মজার ঘটনা ঘটে যা না বললেই না। দৃশ্যটি ধারণের সময় অসংখ্য পুলিশের গাড়ি বহর এবং পুরো এলাকা পুলিশ ঘিরে রেখেছিল, ঠিক সেই সময় একদল ডাকাত একটি দোকানে ডাকাতি করছিল। এত পুলিশ দেখে ডাকাতদল ডাকাতি বাদ দিয়ে আত্মসমর্পণ করে 😀

ছবিটি যারা দেখেননি তারা অবশ্যই দেখবেন, সময়টি বৃথা যাবে না এটা নিশ্চিত। 720p BRrip এর Mediafire, Jumbofiles, Rapidshare এবং Torrent ডাউনলোড লিংক পেতে নিচের লিংক গুলো ক্লিক করুনঃ

Torrent Link:

www.yify-torrents.com/movie/Leon_The_Professional_Extended_1994

Léon: The Professional (1994)
Léon: The Professional poster Rating: 8.6/10 (558,973 votes)
Director: Luc Besson
Writer: Luc Besson
Stars: Jean Reno, Gary Oldman, Natalie Portman, Danny Aiello
Runtime: 110 min
Rated: R
Genre: Crime, Drama, Thriller
Released: 18 Nov 1994
Plot: Mathilda, a 12-year-old girl, who is reluctantly taken in by Léon, a professional assassin, after her family is murdered. Léon and Mathilda form an unusual relationship, as she becomes his protégée and learns the assassin's trade.

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন