Snatch. is all about attitude and style.
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

London Bridge is falling down,

Falling down,

Falling down..

লন্ডনে নির্মিত একটি চলচ্চিত্রটি দেখতে বসে প্রথমে কেন জানি আমার নার্সারিতে পড়া My Fair Lady রাইমটার এই দুইটা লাইন মনে পরে গিয়েছিল। দুঃখের বিষয় একবারও লন্ডন ব্রিজটি চোখে পরেনি।

ওহ! নামইতো বলিনাই।

Snatch. (2000) এর কথা বলছি।

কেন জানি মনে হচ্ছে ইতিমধ্যে প্রায় সবারি Snatch দেখা হয়ে গেছে ।

তাও Snatch নিয়েই লিখতে হলো।

সত্যি কথা বলতে Snatch লিখার অনুপ্রেরনা পেয়েছি আমার ফ্রেন্ড ইভা এবং আমার সিনেমাখোর ভ্রাতা আকিব (Severous Darcy) এর কাছ থেকে।
অনেকদিন ধরে লিখবো লিখবো বলার কারনে গত কয়দিন ধরে এদের দুজনের সাথে চ্যাট করা মুশকিল হয়ে যাচ্ছিল।
যাই হোক, অযথা কথা না বাড়াই।

Lock, Stock and Two Smoking Barrels এর আশ্চর্য সাফল্যের পর, ব্রিটিশ চলচ্চিত্রকার গাই রিচি নির্মাণ করেন অ্যাকশন, কমেডি, ক্রাইম সম্রিধ্য “Snatch” নামক এক অসাধারন চলচ্চিত্র।

কাহিনী সংক্ষেপঃ চলচ্চিত্রটি শুরু হয় তুর্কিশ এবং তার পার্টনার টমির সাথে ইনট্রডিউস- এবং একটি ডায়মণ্ড-হেইস্ট দিয়ে।
article-1354623-0D148056000005DC-666_468x351

তুর্কিশ এবং তার পার্টনার তারা বসেছিল অনবলোকিত এক ব্যক্তির সামনে।
চলচ্চিত্রটি অসাধু বক্সিং- প্রমোটার তুর্কিশের বক্স-ফিক্সিং দিয়ে শুরু হলেও তা আর বক্সিং-এ সীমাবদ্ধ ছিলনা।
তার পরিনতি চলে যায় চুরি যাওয়া ৮৪ ক্যারট ওই হীরেকে ঘিরে।
প্রায় শুরু থেকে শেষ পর্যন্তই চলচ্চিত্রটির প্লট ঘুরে-ফিরে চলচ্চিত্রের শুরুতে চুরি হওয়া ৮৪ ক্যারটের এই হীরেটিতেই ফিরে আসে।
এই চলচ্চিত্র সম্পর্কে এর বেশি কিছু বলতে গেলে আপনাদের কেউ হয়ত আমাকে স্পয়লার খ্যাতি দিতে দ্বিধাবোধ করবেন না। 😛

তাও বলি,
আগেই বলেছি তুর্কিশ ছিল একজন অসাধু বক্সিং- প্রমোটার এবং ম্যাচ ফিক্সার, যার জন্য তাকে পড়তে হয় ব্রিক-টপ নামক লন্ডনের এক পাওয়ারফুল ক্রাইম লর্ড -এর খপ্পরে।

মিকি নামক এক জিপসি এর সাথে গোলমালের কারনে চলচ্চিত্রের প্রথমেই তুর্কিশ হারায় তার রেগুলার বক্সার গর্জিয়াস জর্জকে।
যেহেতু প্রথম ফাইট এর সময় ঘনিয়ে এসেছিল, তার দরুন তাকে ওই জিপসিকে নিয়েই নামতে হয় বক্সিং রিঙে,
আর কুচক্রি ব্রিক-টপ তাকে বাধ্য করে যাতে মিকি ম্যাচের ৪র্থ রাউন্ডে হেরে যায়।

Snatch-brad-pitt-31258876-1920-1080

কিন্তু ওয়ান-পাঞ্চ মেশিনগান মিকির পক্ষে কি সম্ভব ৪র্থ রাউন্ডে হেরে যাওয়া?
আর বক্সিং ছাড়াও কি ঘটছে তুর্কিশ, টমি, ব্রিক-টপ, মিকি ও-নেইল, ফ্রাঙ্কি-ফর ফিঙ্গার্স, অ্যাভি, বুলেট-টুথ টনি, বরিস দ্যা ব্লেইড, ভিনি, সল, মুলেট এবং টাইরনদের কেন্দ্র করে ?

সেগুলো জানতে হলে!

খবরদার! Snatch. দেখবেননা! 😐
vlcsnap-2013-11-13-22h11m15s17

জা করলাম। 😆
বাকি ঘটনা জানতে দেখুন..

Snatch.

কলম্বিয়া পিকচারস এর প্রোডাকশনে নির্মিত চলচ্চিত্রটির পরিচালক এবং লেখক গাই রিচি নিজে।
অভিনয়ে ছিলেন:
জ্যাসন স্টাথাম এজ তুর্কিশ (A promoter for unlicensed boxer)
স্টিফেন গ্রাহাম এজ টমি (Turkish’s business partner)
অ্যালেন ফর্ড এজ ব্রিক-টপ (Crime boss)
ড্যানিস ফ্যারিনা এজ কাজিন অ্যাভি (The American jewel dealer that arranged the diamond heist)
ব্র্যাড পিট এজ মিকি ও-নেইল (A careless gypsy chief and unlicensed boxer)
অ্যাডাম ফজার্টি এজ গর্জিয়াস জর্জ (Turkish’s unlicensed boxer)
মাইক রেইড এজ ডউগ দ্যা হেড a jewel dealer running a diamond shop.
ভিনি জোনস এজ বুলেট-টুথ টনি (Mrcenary, Debt collector)
রবি গী এজ ভিনি (Small-time pawn shop owner)
ল্যানি জেমস এজ সল (Vinny’s partner.)
এডে এজ টাইরন (Vinny’s Driver)
রেইড সারবেদযিয়া এজ বরিস দ্যা ব্লেইড (Ex-KGB Uzbek arms dealer.)
বেনিচিও দেল তরো এজ ফ্রাঙ্কি-ফর ফিঙ্গার্স
জেসন ফ্লেমিং এজ ড্যারেন
ইউয়েন ব্রেমনার এজ মুলেট

এবারে বাড়তি কিছু না বলাটা সত্যি অপরাধ হবে…

প্রথমে তুর্কিশ চরিত্রে অভিনীত জ্যাসন স্টাথামকে ধরি।

Jason-Statham-Wallpaper-2013

একই পরিচালক ধারা নির্মিত Lock, Stock and Two Smoking Barrels দিয়ে তার চলচ্চিত্র জগতে হাতেখরি।
Snatch.-এ তার অভিনয় দেখে ঘুণাক্ষরেও টের পাওয়া যাবেনা যে এটা তার ২য় চলচ্চিত্র ।
চলচ্চিত্রে তিনি ছিলেন এক অসাধু বক্সিং- প্রমোটার। ২য় চলচ্চিত্র হিসেবে Snatch.-এ তার আচরণ, কথা-বার্তা এবং অভিনয় ছিল রিমার্কেবল।
অনেকেরই প্রিয় অভেনেতার লিস্টে জায়গা করে নিয়েছেন তিনি অনেক আগে।
৪৬ বছর বয়সী এই ব্রিটিশ ব্যক্তি একাধারে অভিনেতা, প্রোডিউসার, মার্শাল আর্টিস্ট এবং ফরমার ড্রাইভার।
Lock, Stock and Two Smoking Barrels থেকে শুরু করে এখন পর্যন্ত আমাদের অনেক ভাল ভাল চলচ্চিত্র উপহার দিয়েছেন।
Lock, Stock and Two Smoking Barrels এবং Snatch. তার উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্রগুলো হচ্ছে, The Transporter Trilogy, The Italian Job, Revolver, Crank Duology, The Bank Job, Death Race, The Mechanic
এবং The Expendables Duology.

 

ব্র্যাড পিটকে নিয়ে কিছু না বললে আমাকে হয়তো তাড়িয়ে দেয়া হবে!

না ভাই আমি বিতাড়িত হতে চাইনা। 😀

Brad-Pitt

ব্র্যাড পিট Snatch.-এ মিকি ও-নেইল নামক এক কেয়ারলেস জিপসি এর চরিত্রে ছিলেন।
Snatch.-এ প্রথমেই যা আকর্ষণ করবে তা হচ্ছে ব্র্যাড পিটের এক্সেন্ট।
সত্যি কথা বলতে Snatch লিখার অনুপ্রেরনা পেয়েছি আমার ফ্রে
বিখ্যাত পত্রিকা The New York Times-এ বলা হয়েছিল ব্র্যাড পিটের এক্সেন্ট বেনিচিও দেল তরো থেকেও চমৎকার।
এবার আসুন ব্র্যাড পিটের সাথে পরিচয় করিয়ে দেই।

আপনারা কেউতো ব্র্যাড পিটকে চেনেন না তাইনা? 😛

দুঃখিত। 🙂

কথাটা আসলে হওয়া উচিৎ আপনাদের মধ্যে একজন ব্যক্তিও নেই যিনি ব্র্যাড পিটকে চেনেন না।

William Bradley “Brad” Pitt, যাকে বলা হয় বিশ্বের সবচেয়ে আকর্ষণীয় পুরুষদের একজন।
১৮ই ডিসেম্বর ১৯৬৩ সালে জন্ম নেয়া আমেরিকান অভিনেতার পর্দায় হাতেখড়ি অখ্যাত এক টিভি সিরিজ দিয়ে।
তিনি আলোচনায় আসেন Thelma & Louise এর মাধ্যমে, A River Runs Through It এবং Interview with the Vampire ছিল তার প্রথম দুই লিড-রোল হাই বাজেট চলচ্চিত্র।
এর পর থেকে তিনি আমাদের চমকপ্রদ করেছেন Legends of the Fall, Se7en, Twelve Monkeys, Meet Joe Black, Fight Club এর মত অনন্য সাধারন সব চলচ্চিত্র দ্বারা।
তার সবচে বাণিজ্যিক সফল চলচ্চিত্র হচ্ছে, Troy, Mr. & Mrs. Smith এবং সম্প্রতি মুক্তিপ্রাপ্ত World War Z।
দুঃখের বিষয় চারবার অস্কার নমিনেটেড হওয়া সত্ত্বেও দুর্ভাগা অস্কার কালজয়ী এই অভিনেতার হাতের স্পর্শ পায়নি।

 

শেষে পরিচালক গাই রিচিকে নিয়ে কিছু বলতে হয়,

244.ritchie.guy_

সর্ট-ড্রামা The Hard Case এর কথা বাদ দিলে তার পরিচালিত প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র Lock, Stock and Two Smoking Barrels যার অবস্থান আইএমডিবি ২৫০ এর মধ্যে ১৪১ তম।
Snatch. তার পরিচালিত ২য় চলচ্চিত্র।
এই দুইটি ব্যতিত তার পরিচালিত উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্র হচ্ছে, Revolver, RocknRolla, Sherlock Holmes এবং Sherlock Holmes: A Game of Shadows।

Snatch. (2000)
snatch_xlg

Genres: Crime, Thriller.

IMDb: www.imdb.com/title/tt0208092/
Ratings: 8.3/10 – ‎397,874 votes
Top 250 #109

Rottentomatoes: www.rottentomatoes.com/m/snatch/
Tomatometer: 73%
Audience: 92%

My Ratings: 4/5

Torrent Download Links:

1080p: https://thepiratebay.sx/torrent/7977080
720p: https://thepiratebay.sx/torrent/5845805/

Here one of the two versions, soundtracks album were released before the movie.

Snatch: Stealin’ Stones and Breakin’ Bones

Link: https://thepiratebay.sx/torrent/4649387/

By the way,

Do you guys know what “nemesis” means?

Let me tell you,

“A righteous infliction of retribution manifested by an appropriate agent.”
Personified, in this case, by a horrible c*beep*t: Me.

(ie: Not me ‘Me’. Well, watch Snatch. you will know eventually.)

So, Gentle-Moviephiles
Goodbye from the bad guy! 😛

এই পোস্টটিতে ২০ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. Sev Darcy says:

    সুন্দর রিভিউ। ভবিষ্যতেও আপনাকে এভাবে বিরক্ত করে যাওয়ার ইচ্ছা, যাতে আপনার আরও সুন্দর সুন্দর রিভিউ পড়তে পারি।

  2. টাইলার ডারডেন says:

    মুভি ভালো লাগছে । তোমার লেখাও তেম্ন ভালোই লাগ্লো 🙂 নেক্সট এ শারলক সিরিজ নিয়ে লেখা আশা করছি

  3. পথের পাঁচালি পথের পাঁচালি says:

    লেখার ধরনটা সুন্দর লেগেছে আগেই বলেছি। আপনাকে যদি লন্ডন ব্রিজ দেখাতে পারতাম, আহারে।

  4. হাসান আল মামুন says:

    সত্যিই রিভিউ ভালো লেগেছে। ব্রিটিশ মুভির ফ্লেভার আলাদা। হিউমারও আলাদা। গল্প বলার ভঙ্গিও তাই ভিন্ন।

  5. রীতিমত লিয়া says:

    পিটকে ভাল পাই। দেখতে হবে

  6. James Bond says:

    লেখা টা অনেক ভালো লেগেছে আমার। আর মুভি টাও অনেক ভালো।। 🙂

  7. অ্যান্থনি এডওয়ার্ড স্টার্ক says:

    গাই রিচি। আই লাভ হিজ ওয়ার্কস। 🙂

    আপনার লেখার ধরণ ভাল্লাগছে। এত্তগুলা প্লাস। 😀 + + + + + + + +

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন