SKYFALL (বন্ড, জেমস বন্ড মুভি)
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

নোলানের ব্যাটম্যান সিরিজ থেকে ব্যাপকভাবে অনুপ্রাণিত একটি বন্ড ফিল্ম। আমার মতে, ড্যানিয়েল ক্রেইগের বেস্ট বন্ড ফিল্ম, স্কাইফল।

skyfall-4v

মুভির শুরু থেকেই চিত্রনাট্য চিৎকার করবে, This is a bond film. খুব জরুরী তথ্য সম্বলিত একটা হার্ডডিস্ক হারিয়ে যায় ব্রিটিশ সিক্রেট সার্ভিস MI6 এর কাছ থেকে, সেখানে ফিল্ডে কর্মরত বিভিন্ন এজেন্টের যাবতীয় তথ্য (নাম, ছবি, কর্মস্থল) ছিলো। এটা হারিয়ে যাওয়া মানে, MI6 এর গোপন এজেন্টদের পরিচয় শত্রুদের কাছে ফাঁস হয়ে যাওয়া। বন্ড তাদের পিছু নেয়, এবং ভুলবশত নিজেদের আরেক এজেন্টের গুলি খেয়ে হারিয়ে যায় নদীর স্রোতে…… অফিসিয়াল প্রেস রিলিজ, বন্ড মৃত !!!

Now, come on, this is a bond film, সে মরলে চলবে কিভাবে? মরেনি, ভালো কথা। কিন্তু কাজে ফিরে যাওয়ার কোন ইচ্ছা তার মধ্যে দেখা যাচ্ছেনা। দিনরাত শুয়ে বসে, বিয়ার আর অন্যান্য মদ খেয়ে নিজের অফিসিয়াল মৃত্যু উদযাপন করছে সে।

এমন সময় টিভিতে খবর এলো, MI6 অফিসে বোমা হামলা হয়েছে। আর যাই হোক, এই খবর শোনার পর বন্ড তো আর বসে থাকতে পারেনা। ফিরে এলো সে, কিন্তু আনফিট অবস্থায়। ফিল্ডে যাওয়ার আগে যে সকল ফিটনেস টেস্টে পাশ করতে হয়, তার সব কয়টাতেই ফেল করে সে। কিন্তু, MI6 এখন খুব শোচনীয় অবস্থায় আছে, আর বন্ডকে তাদের দরকার। তাই, তার বস M তাকে মিথ্যে রিপোর্ট দিয়ে তাকে ফিল্ডে পাঠায়। শুরু হয়, শারীরিক ও মানসিক ভাবে আনফিট বন্ডের যাত্রা……

নোলান যখন ব্যাটম্যান কে মানবিক রুপে দেখাতে চাইলো, তখন থেকে মনে হয় এটাই ট্রেন্ড হয়ে দাঁড়িয়েছে। The Amazing Spiderman এও তাই দেখলাম- অবশ্য সেটা কমিকসের অরিজিনাল স্টোরি নিয়ে করা হচ্ছে, তাই অফ গেলাম। এখানেও বন্ডকে তার পাথুরে চরিত্র থেকে কিছুটা বের করে আনা হয়েছে, which is good, আমরা তো Robocop দেখার জন্য বন্ড দেখতে যাইনা, তাইনা?

ভিলেন এর সিলেকশন হিসেবে দারুণ ছিলো হ্যাভিয়ার বারডেম, কিন্তু তার পটেনশিয়াল এর প্রতি জাস্টিস করতে পারেনি স্কাইফলের স্টোরি এবং ডিরেকশন। About the similarity with Nolan’s Batman Series, বারডেমের কিছু স্কিমের মধ্যেও ডার্ক নাইটের গন্ধ আছে। এর চেয়ে বেশি বলতে গেলে স্পয়লার হয়ে যাবে। আর স্ক্রীনপ্লে, ভালোই চেষ্টা করা হয়েছে জোনাথন নোলান এর মত উত্তেজনাময় স্ক্রীনপ্লে বজায় রাখতে।

এই বন্ডের অন্যতম একটা সাইড হচ্ছে, সুপার্ব ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক আর উড়াধুরা সিনেমাটোগ্রাফী। বাজি ধরে বলতে পারি, এতো ভালো Site selection আর Direction of Photography আগের কোন বন্ড ফিল্মেই ছিলোনা।

গ্ল্যামার, একশন, ইঁদুর-বিড়ালের দৌড়, সুচতুর ডায়লগ – সব মিলিয়ে A GOOD AND RECOMMENDED BOND FILM – SKYFALL.

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন