A Clockwork Orange !!! ধ্রুপদী সঙ্গীত,ধর্ষণ , অতিমাত্রায় সহিংসতা ও এর পরিণতি ।
Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterPin on Pinterest0

অ্যান্থনি বার্জেসের ১৯৬২ সালের উপন্যাস অবলম্বনে নির্মিত এই মুভি । স্ট্যানলি কুবরিকের সাথে পরিচিত যে কেওই জানবেন যে তার নির্মিত প্রায় প্রতিটি মুভিই অসাধারণ শিল্পকর্মের ফসল । তার ১৩টি মুভির অধিকাংশের কাহিনীই বিভিন্ন গল্প ও উপন্যাস থেকে নেয়া হলেও ফিল্মে তার নিজস্ব চিন্তা, অনুভূতি এবং উপলব্ধিগুলো থাকে প্রকট । “দি ক্লকওয়ার্ক অরেঞ্জ” তার ক্যারিয়ারের অন্যতম সফল একটি চলচ্চিত্র । স্ট্যানলি কুবরিকের এর পরিচালনা,  ম্যালকম ম্যাকডাওয়লেরয় অভিনয় আর টানটান কাহিনির সমন্বয়ে এই মুভিটা বলতে গেলে একটা টাইমবোম্বে পরিনত হয়েছে । কিছু মুভি থাকে যার কোনো তুলনা হয় না । এটা সেরকমেরই একটা মুভি ।

a_clockwork_orange_blu_ray_cover_version_2_by_bradymajor-d5uyvji

অ্যালেক্স ডিলার্জ ( ম্যালকম ম্যাকডাওয়ল ) ভবিষ্যৎ ইংল্যান্ডের এক শহরের ১৭ বছর বয়সের এক সুদর্শন তরুন । সুদর্শন, রুচিশিল । সে দুধ খেতে পছন্দ করে । এবং সে অবশ্যই সংগীত প্রিয়, বিশেষ করে ‘Beethoven’ ভক্ত । সে একটি ছোট কিশোর গ্যাংয়ের প্রধান । গ্যাংয়ের সদস্য অ্যালেক্সসহ চার জন । তারা স্কুলে যায় না, অত্যন্ত ধূর্ত, নির্মম, নিষ্ঠুর । সারাদিন ঘুমায় আর বিকেল হলেই বেরিয়ে পরে আর স্থানীয় করোভা মিল্ক বার-এ একত্রিত হয় । সন্ধ্যা হলেই তারা যতসব অপকর্ম শুরু করে । চুরি, ডাকাতি,  মারামারি, ধর্ষণ, বৃদ্ধ লোককে মারধর করা ,এমনকি খুন তাদের কাছে কোন ব্যাপারই না । এক পর্যায়ে অ্যালেক্সের সাথে তার বন্ধুদের সম্পর্ক খারাপ হয়ে যায় । অ্যালেক্সের একাধিপত্যই এর কারণ । যার কারনে একদিন তার বন্ধুরা বিশ্বাসঘাতকতা করে তাকে ফেলে  চলে যায় এবং সে পুলিশের কাছে ধরা পরে । একজন মহিলাকে খুনের অপরাধে তাকে ১৪ বছরের সাজা দেয়া হয় ।

 

2002-British-TV

hqdefault

 

কারাগার থেকে তাকে লুডোভিকো মেডিকেল সেন্টারে পাঠানো হয় । এই হাসপাতালে আসামীদেরকে লুডোভিকো কৌশলের মাধ্যমে খারাপ থেকে ভাল মানুষে পরিণত করা হয় । এই চিকিৎসার মাধ্যমে অ্যালেক্স ভাল মানুষে পরিণত হয় । প্রকৃতঅর্থে অবশ্য ভাল নয় । এখনও তার খারাপ কাজগুলো করার ইচ্ছা থাকবে, কিন্তু সে চাইলেও সেগুলো করতে পারবে না । জেল থেকে ছাড়া পাওইয়া খুনের আসামীকে সমাজ ভালভাবে নেয় না । অচিরেই অ্যালেক্সের জীবন দুর্বিসহ হয়ে উঠে । যেসব রাজনৈতিক ও সমাজকর্মী লুডোভিকো কৌশলের বিপক্ষে ছিল তারা এর সুযোগ নেয় । এভাবে অপরাধ ও শাস্তির চিরন্তন দ্বন্দ্ব ফুটিয়ে তোলা হয় সিনেমাটিতে ।

images

 

মানুষের সেচ্ছাচারিতা মানুষকে কতোটা নিম্ন পর্যায়ে নিয়ে যেতে পারে আর এর জন্য জীবনের শেষ সময়গুলো কতোটাইনা নির্মম হয় এই মুভিটি তার একটি নিদর্শন !!

অসাধারণ চিত্রনাট্য, ভাষার ক্ষেত্রে ইংরেজি সংলাপ ও গালি গুলোকে রুশকরন করা, স্নেক আই ভিউ মুডে দৃশ্যধারণ, অসাধারণ সিনেমাটোগ্রাফি, একটি যৌনদৃশ্যের ফাস্ট ফরওয়ার্ড প্লে, ব্যাকগ্রাউন্ড মিউজিক হিসেবে ক্লাসিক্যাল মিউজিকের ব্যবহার এবং প্রথমদিকে  ‘Beethoven’  প্রিয় অ্যালেক্স কে শেষ দিকে এসে সেই  ‘Beethoven’  দিয়েই অত্যাচার করা, এগুলো সবই কুবরিকের অসাধারণ চিন্তার ফসল ।

 

আর সবকিছু ছাপিয়ে কুবরিকের “Goodness” এর সংজ্ঞা খোঁজার চেষ্টা…

“Goodness comes from within. Goodness is chosen. When a man cannot choose, he ceases to be a man.”

. . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . . .

 

** সেন্সরশিপ –

 

১৯৭১ সালে মুক্তি পাওইয়ার সময় যুক্তরাষ্ট্রে একে  “এক্স” রেটিং দেয়া হয় । এ কারণে স্ট্যানলি কুবরিক স্বেচ্ছায় ছবি থেকে ৩০ সেকেন্ড কেটে বাদ দেন । এরপর ১৯৭৩ সালে পুনর্মুক্তির সময় একে “আর” রেটিং দেয়া হয় । United States Conference of Catholic Bishops’ Office for Film and Broadcasting  এই ছবিকে “সি” (নিষিদ্ধ) রেটিং দিয়েছে । তাদের এই রেটিং বলে, কোন ক্যাথলিকের এ সিনেমা দেখা উচিত হবে না । কারণ এতে উচ্চমাত্রার সহিংসতা ও অশ্লীল যৌনসংসর্গের সরাসরি দৃশ্য দেখানো হয়েছে । তবে ১৯৮২ সালে এই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়া হয় । এর বদলে “ও” রেটিং দেয়া হয় যার অর্থ নৈতিকভাবে ক্ষতিকর ।

যুক্তরাষ্ট্রে এর যৌনসংসর্গ ও ধর্ষণের দৃশ্যগুলো চুড়ান্ত নেতিবাচক বিবেচিত হয় । ১৯৭২ সালে ১৪ বছর বয়সী এক স্কুল ছাত্র তার বন্ধুকে হত্যার কারণে অভিযুক্ত হয় । বিচারের সময় তার এই ঘটনার সাথে আ ক্লকওয়ার্ক অরেঞ্জ এর সম্পর্ক টানা হয় । পরবর্তীতে ১৬ বছরের আরেক ছেলের ক্ষেত্রে অনেকটা একই ধরণের ঘটনা ঘটে । এছাড়া এর একটি দৃশ্যে ধর্ষণের সময় ছেলেদেরকে “সিংইং ইন দ্য রেইন” গান গাইতে দেখা যায় । এই দৃশ্যটিও বিপুল সমালোচিত হয় । এই পরিস্থিতিতে কুবরিক নিজেই ওয়ার্নার ব্রাদার্স স্টুডিওকে যুক্তরাজ্য থেকে সিনেমার সরবরাহ উঠিয়ে নিতে অনুরোধ করেন । দীর্ঘ ২৭ বছর ব্রিটেনে এই ছবি পাওযয়ার কোন উপায় ছিল না । কুবরিকের মৃত্যুর পরপর ডিভিডি প্রকাশিত হয় । সবাই ধারণা করতেন, উপর্যুক্ত কারণেই কুবরিক ওয়ার্নার ব্রাদার্সকে যুক্তরাজ্য থেকে সরবরাহ উঠিয়ে নিতে অনুরোধ করেছিলেন । কিন্তু কুবরিকের মৃত্যুর পর অনুষ্ঠিত এক প্রামাণ্য চিত্রে তার স্ত্রী বলেন, এ কারণে নয় বরং কুবরিক ও তার পরিবারের উপর হত্যার হুমকি এসেছিল বলেই তিনি এমনটি করেছিলেন !!

 

 

** পুরস্কার ও সম্মাননা –

 

30405805_

 

আ ক্লকওয়ার্ক অরেঞ্জ পরিচালনা, সম্পাদনা, সেরা ছবি ও অভিযোজিত চিত্রনাট্য- এই চারটি ক্ষেত্রে একাডেমি পুরস্কার মনোনয়ন লাভ করে । কিন্তু চারটিতেই দ্য ফ্রেঞ্চ কানেকশন-এর কাছে হেরে যায় । তাই এর কোন অস্কার পাওয়া হয়নি ।

 

সাতটি ক্ষেত্রে বাফটা পুরস্কার মনোনয়ন লাভ করে । ক্ষেত্রগুলো হচ্ছে শিল্প নির্দেশনা (জন বেরি), চিত্রগ্রহণ (জন অ্যালকট), পরিচালনা (কুবরিক), ছবি, সম্পাদনা (উইলিয়াম বাটলার), চিত্রনাট্য (কুবরিক) এবং সাউন্ডট্র্যাক (ব্রায়ান ব্লেমি, জন জর্ডান ও বিল রো) ।

 

অ্যামেরিকান ফিল্ম ইনস্টিটিউট ১০০ বছরের মার্কিন চলচ্চিত্রের ইতিহাসে সেরা নির্বাচন করতে গিয়ে বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে আ ক্লকওয়ার্ক অরেঞ্জকে সম্মানিত করে । এগুলো হচ্ছে :

 

১৯৯৮ – সর্বকালের সেরা ১০০ ছবির তালিকায় ৪৬ নম্বর স্থান ।

২০০১ – সর্বকালের সেরা ১০০ থ্রিলের তালিকায় ২১ নম্বর স্থান ।

২০০৩ – সর্বকালের সেরা ভিলেনের তালিকায় অ্যালেক্স ডিলার্জ-এর ১২ নম্বর স্থান ।

২০০৭ – সর্বকালের সেরা ১০০ ছবির তালিকায় ৭০ নম্বর ।

২০০৮ – ১০ টপ ১০ এ সর্বকালের সেরা বিজ্ঞান কল্পকাহিনীমূলক চলচ্চিত্রের তালিকায় ৪ নম্বর স্থান ।

 

IMDB  রেটিং – ৮.৪

 

** বিঃ দ্রঃ

মুভিতে প্রচুর সেক্স ভায়োলেন্স তুলে ধরা হয়েছে । পরিচালক এটার ভিতর দিয়ে ইংল্যেন্ডের পরবর্তী সময়ের একটা ফিউচার টেল করেছেন । তিনি ব্যক্তিগত মতামত এবং আপনা ভাবনায় বিশ্বাসি ছিলেন । সক্ল কাজের মূল চাহিদা সেক্সকে একটু নাড়িয়ে চাড়িয়ে উপস্থাপন করেছেন তিনি সম্পুর্ন ভিন্নমাত্রায় । যেহেতু এডাল্ট রেটেড মুভি সেহেতু এক দেখাই ভালো ।


এই পোস্টটিতে ৪ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. শাতিল আফিন্দি says:

    আমি অনেকদিন থেকে মুভিটা দেখবো বলে ভাবছি, জানি এটা একটা মাস্টারপিস। লেখাটা ভালো হয়েছে। :)

  2. চরম একটা মুভি,পাল্প ফিকশান নিয়ে এরকম একটা রিভিউ চাই।

মন্তব্য করুনঃ

You must be Logged in to post comment.

ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য করুন